সোমবার, ২১ আগস্ট ২০১৭ ০৪:০০:২০ পিএম

শাজাহানপুরে স্ত্রীর দেওয়া গরম পানিতে স্বামীর মৃত্যু

জেলার খবর | বগুড়া | সোমবার, ২ জানুয়ারী ২০১৭ | ১০:৪২:৪৬ পিএম


বগুড়ার শাজাহানপুরে স্ত্রী ঢেলে দেওয়া গরম পানিতে স্বামীর মৃত্যু হয়েছে। আজ সোমবার ভোর সোয়া ৫টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় সে।

এ ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের নয়মাইল জামালপুর গ্রামে।
নিহত ইব্রাহীম হোসেন (৪৫) চাঁপাইনবাবগঞ্জের কানসাট আইরামাড়ি গ্রামের ইদ্রিস আলীর পুত্র এবং ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার (এসও)।

জানা গেছে, ছয় বছর আগে ইব্রাহীম হোসেনের সাথে উপজেলার জামালপুর মধ্যপাড়ার মৃত নুরুন্নবী মাস্টারের মেয়ে সুলতানার বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই সুলতানা বাবার বাড়িতে থাকে। স্বামী ফায়ার সার্ভিসের ঢাকা হেড অফিসে চাকরি করে। বর্তমানে তাদের সাড়ে ৩ বছর বয়সী ইকরা নামের একটি কন্যা ও ৪ মাস বসয়ী ইসমাইল নামে একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। গত বৃহস্পতিবার রাত ১টার দিকে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়। এ সময় সুলতানা তার স্বামীর শরীরে গরম পানি ঢেলে দেয়। গুরুতর আহতাবস্থায় ওই দিনই তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি হলে পরদিন সকালে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বার্ন ইউনিটে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ সোমবার ভোরে মারা যান তিনি।

স্বামীর শরীরে গরম পানি ঢেলে দেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করে স্ত্রী সুলতানা জানান, তার স্বামী ইব্রাহীমের আগে ৩ বউ ছিল। বিয়ের সময় তা গোপন রেখে তাকে বিয়ে করে। বিয়ের পর আরো দুটি মেয়ের সাথে সে অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত ৬ মাস যাবৎ আরেকটি বিয়ের অনুমতির জন্য চাপ প্রয়োগ করছিল। অনুমতি না দেওয়ায় তখন থেকেই সে বিভিন্নভাবে সুলতানাকে নির্যাতন করত। এই বিষয়গুলো ফায়ার সার্ভিসের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানালে কর্তৃপক্ষ তাকে সতর্ক করে দেয়। তারপরও সে বিয়ের অনুমতির জন্য তাকে চাপ প্রয়োগ করছিল। এমতাবস্থায় বৃহস্পতিবার রাতে রাগের বশে তার স্বামীর শরীরে গরম পানি ঢেলে দেয়। কিন্তু এভাবে তার স্বামীকে হারিয়ে দুই সন্তান এতিম হবে ভেবে ভেঙে পড়েন সুলতানা।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন