রবিবার, ৩০ এপ্রিল ২০১৭ ১১:১৭:২৫ এএম

‘ক্ষতিগ্রস্তরা বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ করতে পারবে’

জেলার খবর | মাদারীপুর | শনিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৭ | ০৬:১৬:০০ পিএম

পদ্মা সেতু দুর্নীতির অভিযোগে ক্ষতিগ্রস্তরা বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উত্থাপন করতে পারবে বলে জানিয়েছেন নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান।

শনিবার দুপুরে মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ আয়োজিত সুধী সমাবেশে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

নৌপবিহনমন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতুর দুর্নীতির যে অভিযোগ করেছিল বিশ্বব্যাংক, তা এখন অসত্য প্রমাণিত হয়েছে। বিশ্বব্যাংক যে মিথ্যে অভিযোগ দিয়ে পদ্মা সেতুর টাকা দেওয়া বন্ধ করে দিয়েছিল, সেই কারণে একজন মন্ত্রীকে পদত্যাগ করতে হয়েছিল, একজন সচিবকে কারাগারে যেতে হয়েছিল, যা দুঃখজনক।

মন্ত্রী বলেন, এতে সরকারের পক্ষ থেকে বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে মামলা করার কোনো সুযোগ নেই। তবে ক্ষতিগ্রস্তরা চাইলে বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উত্থাপন করতে পারবে।

কালকিনি উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার আব্দুল মালেক হাওলাদারের সভাপতিত্বে সুধী সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মিয়াজউদ্দিন খান, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাকিলুর রহমান সোহাগ তালুকদার, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান পাভেলুর রহমান শফিক খান, কালকিনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাম্মী আক্তার, কালকিনি উপজেলার প্রাক্তন চেয়ারম্যান মীর গোলাম ফারুক প্রমুখ‘ক্ষতিগ্রস্তরা বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ করতে পারবে’

পদ্মা সেতু দুর্নীতির অভিযোগে ক্ষতিগ্রস্তরা বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উত্থাপন করতে পারবে বলে জানিয়েছেন নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান।

শনিবার দুপুরে মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ আয়োজিত সুধী সমাবেশে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

নৌপবিহনমন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতুর দুর্নীতির যে অভিযোগ করেছিল বিশ্বব্যাংক, তা এখন অসত্য প্রমাণিত হয়েছে। বিশ্বব্যাংক যে মিথ্যে অভিযোগ দিয়ে পদ্মা সেতুর টাকা দেওয়া বন্ধ করে দিয়েছিল, সেই কারণে একজন মন্ত্রীকে পদত্যাগ করতে হয়েছিল, একজন সচিবকে কারাগারে যেতে হয়েছিল, যা দুঃখজনক।

মন্ত্রী বলেন, এতে সরকারের পক্ষ থেকে বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে মামলা করার কোনো সুযোগ নেই। তবে ক্ষতিগ্রস্তরা চাইলে বিশ্বব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উত্থাপন করতে পারবে।

কালকিনি উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার আব্দুল মালেক হাওলাদারের সভাপতিত্বে সুধী সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মিয়াজউদ্দিন খান, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাকিলুর রহমান সোহাগ তালুকদার, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান পাভেলুর রহমান শফিক খান, কালকিনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাম্মী আক্তার, কালকিনি উপজেলার প্রাক্তন চেয়ারম্যান মীর গোলাম ফারুক প্রমুখ।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন