শনিবার, ২৭ মে ২০১৭ ১০:২৪:৫৫ এএম

হাবের নির্বাচন শেষ, ফলাফলের অপেক্ষা

জাতীয় | বৃহস্পতিবার, ২০ এপ্রিল ২০১৭ | ০৯:০৩:৪২ পিএম

সুষ্ঠুভাবে শেষ হয়েছে হজ এজেন্সিস অ্যাসোসিয়েশন (হাব) এর দ্বিবার্ষিক নির্বাচন।

এখন ভোটের বাক্স খোলা হচ্ছে। শুরু হবে ভোট গণনা। তবে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটে ভোট গণনা শেষ করে ফলাফল ঘোষণায় রাত হতে পারে বলে জানিয়েছেন হাবের নেতারা।

হাব গণতান্ত্রিক ফোরামের প্রার্থী ফরিদ আহমেদ মজুমদার জানান, এখনো ভোট গণনা শুরু হয়নি। কেবল ভোটের বাক্স খোলা হচ্ছে। গণনা শুরু করতে কিছুটা দেরি হবে। ফলাফল পেতে আরো সময় লাগবে। তবে কখন জানা যাবে তা নিশ্চিত করেননি তিনি। নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়েছে বলেও দাবি করেন ফরিদ আহমেদ।

হাবের নির্বাচন বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে শুরু হয়। ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটে একযোগে ভোটগ্রহণ চলে। শেষ হয় বিকেল ৫টায়। রাজধানী নয়াপল্টনের আনন্দ কমিউনিটি সেন্টার ও চট্টগ্রাম-সিলেটে হাব কার্যালয়ে উৎসবমুখর পরিবেশে ভোটাররা পছন্দের লোকজনকে ভোট দেন।

ভোটাররা জানান, রাতেই জানা যাবে কে হচ্ছেন হাবের নতুন নেতা। শেখ আবদুল্লাহ, জামাল উদ্দিন, আব্দুস সোবহান- এ তিনজনের মধ্যে ভোটাররা কাকে বেছে নিয়েছেন তা রাতেই নির্ধারিত হয়ে যাবে।

এই নির্বাচনে মোট তিনটি প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। তার মধ্যে হাবের সাবেক সভাপতি আলহাজ জামাল উদ্দিনের নেতৃত্বে হাব সমন্বয় পরিষদ, হাবের বর্তমান মহাসচিব শেখ আবদুল্লাহর নেতৃত্বে হাব গণতান্ত্রিক ফোরাম আর আব্দুস সোবহানের নেতৃত্বে হাব গণতান্ত্রিক ঐক্যফ্রন্ট।

শেখ আবদুল্লাহ হাব গণতান্ত্রিক ফোরামের প্যানেল প্রধান। তিনি বর্তমান হাবের মহাসচিব। এর আগে মহাসচিব, যুগ্ম মহাসচিবের দায়িত্ব পালন করেছেন। জামাল উদ্দিন হাব সমন্বয় পরিষদের প্যানেল প্রধান। তিনি আগে দুবার হাবের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন।

নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করেন হাবের শীর্ষপর্যায়ের নেতা হারুনুর রশীদের নেতৃত্বে তিন সদস্যের নির্বাচন কমিশন। ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটে হাবের ভোটার সংখ্যা ১ হাজার ১৫৮। তার মধ্যে শুধু ঢাকায় ৮৫৮ জন ভোট দেন। চট্টগ্রাম ও সিলেটের ভোটদানের সংখ্যা জানা যায়নি।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন