বৃহস্পতিবার, ২৯ জুন ২০১৭ ০৮:১৩:২৬ পিএম

ঘড়ের আগুনে পুড়ছে কালকিনির আওয়ামীলীগ

জেলার খবর | মাদারীপুর | বৃহস্পতিবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৭ | ০৪:১৫:৫২ পিএম

অন্তঃদ্বন্দ্বের কারনে মাদারীপুরের কালকিনিতে উপজেলা ও পৌর আ’লীগের রাজনীতি বর্তমানে টালমাটাল অবস্থায় রুপ নিয়েছে। ছন্দ হাড়িয়ে গেছে তাদের রাজনীতিতে। আগের তুলনায় সাংগঠনিক কাঠামো বর্তমানে চড়ম দূর্বল হয়ে পড়েছে। ইতি মধ্যে অনেক ত্যাগী নেতা-কর্মীরা নানা বঞ্চনার স্বীকার হয়ে সংগঠন থেকে দুরে সরে যাওয়ায় এ অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে বলে বিভিন্ন সুত্রে জানা যায়। সব মিলিয়ে ঘড়ের আগুনেই পুড়ছে আ’লীগ।

দলীয় ও একাধিক সুত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন উপজেলা ও পৌর আ’লীগের রাজনীতি ছিল সু-সংগঠিত এবং অনেক শক্তিশালী। কিন্তু গত পৌর নির্বাচনে প্রার্থী বাছাই নিয়ে আ’লীগের নেতা-কর্মীদের মাঝে দ্বিধাদ্বন্দ্ব শুরু হয়। এর জের ধরে নানা নাটকীয়তা সৃষ্টি হয় আ’লীগের মাঝে। এরপর বেশ কয়েকজন ত্যাগী নেতা নানা বঞ্চনার স্বীকার হয়ে সংগঠন থেকে দুরে সরে যান। এতে করে আ’লীগের সাংগঠনিক অবস্থায় দূর্বল হয়ে পড়ে। পৌর নির্বাচনের পর উপজেলা আ’লীগের কান্ডারী হিসিবে পরিচিত সাধারন সম্পাদক মীর গোলাম ফারুককে দল থেকে বহিস্কার করা হয়। এ ঘটনার পর সংগঠনের মাঝে ঘোলাটে পরিবেশ সৃষ্টি হয়।

প্রথম থেকেই কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা আ’লীগের সদস্য সাকিলুর রহমান সোহাগ তালুকদার মনে প্রানে সংগঠনের জন্য কাজ করে যাচ্ছিলেন। কিন্তু তিনি আ’লীগের গুটি কয়েকজন নেতার বঞ্চনার স্বীকার হয়ে সংগঠন থেকে দুরে সরে যান। উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মনিরুজ্জামান হাওলাদারসহ বেশ কয়েকজন নেতা বর্তমানে মান অভিমান নিয়ে নিজেদের মত করে চলছেন এমন কি তাদেরকে সাংগঠনিক কোন কার্যক্রমে দেখা যায় না। এদিকে উপজেলা আ’লীগের সভাপতি তাহমিনা সিদ্দিকী রহস্যজনক কারনে তিনি তার পদ থেকে কয়েকবার পদত্যাগ করা নিয়ে চলে আলোচনার ঝড়। সব মিলিয়ে কালকিনি আ’লীগের রাজনীতির এখন বেহাল দশায় রুপ নিয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বেশ কয়েকজন আ’লীগের নেতা-কর্মী অভিযোগ করে বলেন, আ’লীগের ত্যাগী-নেতা কর্মীদের মূল্যায়ন না করার কারনে আজ এ বেহালা অবস্থা হয়েছে আ’লীগের।

উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মনিরুজ্জামান হাওলাদার বলেন, বর্তমানে আওয়ামীলীগে বিএনপি-জামায়াত প্রবেশ করেছে। তাই আমাদের ত্যাগী নেতা-কর্মীদের কোন মুল্য নেই। সংগঠনে জামায়াত- বিএনপি থাকায় আমরা কার্যক্রমে অংশ গ্রহন করিনা।

উপজেলা আ’লীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক মীর গোলাম ফারুক বলেন, বর্তমানে কালকিনিতে কোন আ’লীগ নেই। আছে শুধু হাইব্রীট ও মেরুদন্ডহীন আ’লীগ। এমন কি বিএনপি- জামায়াত নিয়ে চলছে আ’লীগ।

কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা আ’লীগের সদস্য সাকিলুর রহমান সোহাগ তালুকদার বলেন, আবুল হোসেন ও গোলাপ পন্থীদের আ’লীগ থেকে বাদ দিয়ে বিএনপি-জামায়াত দলে ঢোকানোর কারনে এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। একদিকে ত্যাগী নেতাদের এখন কোন মুল্যায়ন নেই।

এ ব্যাপারে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক তৌফিকুজ্জামান শাহীনের কাছে সাংবাদিকরা জানতে চাইলে তিনি বলেন, বড় দলে সামান্য একটু দ্বন্দ্ব থাকতেই পারে। এটা কোন বিষয় না।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন