বুধবার, ২২ নভেম্বর ২০১৭ ০৮:৪২:১৬ পিএম

বরিশালের সেই ছাত্রলীগ সভাপতি বহিষ্কার

রাজনীতি | বরিশাল | সোমবার, ১৭ জুলাই ২০১৭ | ০১:১০:০৭ পিএম

বরিশালের বানারীপাড়ার বেতাল গ্রামে স্বামীকে আটকে রেখে নববধূকে (২২) ধর্ষণের অভিযোগে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন হোসেন মোল্লাকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

সোমবার বেলা ১১টার দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক জানান, সুমন হোসেন মোল্লাকে দল থেকে বহিষ্কার করতে জেলা ছাত্রলীগের সুপারিশপত্র ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের কাছে পাঠানো হয়। এর প্রেক্ষিতে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সুমন হোসেন মোল্লাকে দল থেকে বহিষ্কার করেন।

বানারীপাড়ার সলিয়াবাকপুর ইউনিয়নের বেতাল গ্রামে এক নববধূকে ধর্ষণের ঘটনায় বানারীপাড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন মোল্লার বিরুদ্ধে রবিবার বিকালে একটি মামলা হয়। ছাত্রলীগের ইমেজ রক্ষায় সুমন মোল্লাকে বহিষ্কারের সুপারিশ পাঠায় বরিশাল জেলা ছাত্রলীগ।

বহিষ্কৃত সুমন হোসেন মোল্লা বেতাল গ্রামের মৃত খবির উদ্দিন মোল্লার ছেলে এবং বানারীপাড়ার উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি।

এর আগে রোববার রাত সাড়ে ৮টার দিকে ধর্ষণ মামলায় বরিশাল নগরীর কালীবাড়ি রোড থেকে পুলিশ ও জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ যৌথভাবে অভিযান চালিয়ে সুমন হোসেন মোল্লাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

বানারীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সাজ্জাদ হোসেন জানান, ধর্ষণের শিকার ভিকটিম নোয়াখালী জেলার বাসিন্দা। কাজের সুবাদে তিনি চট্টগ্রামে থাকতেন। সেখানে সেলিম নামে এক অটোচালকের সঙ্গে পরিচয় হয়। যে তাকে বিয়ে করে। তবে সেলিমের এটি দ্বিতীয় স্ত্রী। সেলিম বেতাল গ্রামে নানা বাড়িতে দ্বিতীয় স্ত্রীকে নিয়ে এক সপ্তাহ আগে আসেন। খবর পেয়ে সুমন মোল্লা ও তার সহযোগীরা ওই বাড়িতে গিয়ে মেয়েটি ও তার স্বামীকে ধরে নিয়ে যায়। পরে মেয়েটিকে পাশের একটি বাড়িতে নিয়ে সুমন ধর্ষণ করে বলে মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে। এসময় তার স্বামীকে আটকে রাখা হয়।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন