বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০১:০৪:৪৯ পিএম

গাজীপুর কালীগঞ্জে অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী নিয়ে উধাও ছাত্রলীগ নেতা

জেলার খবর | গাজীপুর | মঙ্গলবার, ৮ আগস্ট ২০১৭ | ১১:৫২:২৪ এএম

গাজীপুরের কালীগঞ্জে অষ্টম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে (১৪) অপহরণের অভিযোগ উঠেছে উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির বিরুদ্ধে।

সোমবার বিকেলে ছাত্রীর বাবা কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ও পৌর এলাকার দুর্বাটি গ্রামের ইসলাম উদ্দিনের ছেলে আবুল বাশার ওরফে কাজলকে (২৬) মেয়ের অপহরনে অভিযুক্ত করে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। পুলিশ ভিক্টিমকে উদ্ধার ও কাজলকে আটকের জন্য গত সোমবার মধ্যরাত থেকে অভিযান চালাচ্ছে।

কালীগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আশিষ কুমার জানান, রোববার বিকেলে স্থানীয় পানজোড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে কাজলসহ তার কয়েক সহযোগী মিলে ওই ছাত্রীকে মোটরসাইকেলে তুলে দ্রুত এলাকা ত্যাগ করে। পরে তার স্বজনরা সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ করে ওই ঘটনা জানতে পারে এবং কাজলসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে সোমবার সন্ধ্যায় কালীগঞ্জ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন ভিক্টিমের বাবা। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। ছেলে ও মেয়ে দুইজনেরই কোন হদিস নেই। তবে প্রেম গঠিত বিষয়ে কাজলের সাথে ভিক্টিম পালিয়ে গেছে বলে ধারণা করছেন তিনি।

কালীগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্তি পুলিশ সুপার পঙ্কজ দত্ত সাংবাদিকদের বলেন, কাজলের স্বজন ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাদের দাবি অপহরণ নয়, স্কুল ছাত্রী কাজলের সাথে স্বেচ্ছায় চলে গেছে। তবে ছাত্রীর বাবা কাজলের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন স্বেচ্ছায় নয়, তার মেয়েকে কাজল অপহরণ করে নিয়ে গেছে।

অপহৃত স্কুল ছাত্রীর বাবা মাসুদ ভূঁইয়ার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে এবিষয়ে কিছু বলতে অস্বীকৃতি জানিয়ে মোবাইল স্থানীয় একটি স্কুলের গণিতের শিক্ষক নাজমুলকে দিয়ে দেন। পরে নাজমুল বলেন, বিষয়টি নিয়ে আমরা আপনাদের পরে জানাবো। আমরা দুইপক্ষ মিলে একটা সুরাহার চেষ্টা করছি।

গাজীপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি দেলোয়ার হোসেন বলেন, এ খবরটি নিশ্চিত হতে পারেননি। আপনাদের কাছে শুনলাম। তবে কাজল ওই ঘটনায় জড়িত থাকলে তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা ও প্রশাসনকে সকল প্রকার সহযোগীতা করা হবে।

রাত সাড়ে ১২টার দিকেও কাজলের মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তা বন্ধ পাওয়া গেছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন