সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭ ০২:৫৮:৪৩ পিএম

আমেরিকাকে মোকাবিলায় উত্তর কোরিয়ার ৩৫ লাখ ছাত্র ও শ্রমিকের শপথ!

আন্তর্জাতিক | রবিবার, ১৩ আগস্ট ২০১৭ | ০১:৪১:৫৫ এএম

কমপক্ষে ৩৫ লাখ স্বেচ্ছাসেবী আমেরিকার সঙ্গে লড়াই করতে প্রস্তুত আছে বলে জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া। দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে বলা হয়, আমেরিকাকে দাঁত ভাঙা জবাব দেওয়ার জন্য এসব স্বেচ্ছাসেবীর তর সইছেনা, তারা দারুণভাবে উজ্জীবিত।

উত্তর কোরিয়ার ওয়ার্কার্স পার্টির পত্রিকা রডং সিনমুন-এ বলা হয়, আমেরিকাকে সহস্রগুণে আক্রমণ ফিরিয়ে দিতে দেশের আনাচে কানাচে থেকে হাজারও মানুষ দলে দলে উঠে আসছে।

সিনমুন আরও জানায়, আসন্ন যুদ্ধ পরিস্থিতিতে গত কয়েকদিনে প্রায় ৩৪ লাখ ৭০ হাজার মানুষ ইতোমধ্যেই সেনাবাহিনীতে নাম লিখিয়েছে। তাদের মধ্যে ছাত্র থেকে শুরু করে রিটায়ার্ড সেনা সদস্যরাও রয়েছেন।

প্রতিবেদন অনুযায়ী, ৯ আগস্টের মধ্যে শুধুমাত্র উত্তর হাওয়াঙ্গি প্রদেশ থেকেই ৮৯ হাজার সাধারণ তরুণ সেনাবাহিনীতে নাম লিখিয়েছে। দক্ষিণ পিয়ংইয়ংয়ের ডেডং কাউন্টি থেকে প্রায় ২০ হাজার ছাত্র, পার্টি সদস্য এবং শ্রমিক তাদের নাম অন্তর্ভূক্ত করেছে।

গত বুধবার হাজার হাজার উত্তর কোরিয়ার সাধারণ মানুষ পিয়ংইয়ংয়ের ইল-সাং স্কোয়ারে এসে মিলিত হয়। দেশটির বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদ জানাতেই তারা জড়ো হয়েছিলো।

উল্লেখ্য, সাম্প্রতিক মাসগুলোতে উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে নতুন করে বিরোধের সূত্রপাত হয়। যুক্তরাষ্ট্রের কড়া নিষেধাজ্ঞা সত্তে¡ও গত মাসে দেশটি দুটি আন্ত:মহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালায়। সর্বশেষ পাওয়া খবরে জানা যায়, দেশটি ইতোমধ্যেই পারমানবিক অস্ত্রও তৈরী করে ফেলেছে।

এগুলো এখন ক্ষেপণাস্ত্রগুলোতে স্থাপনের কাজ চলছে। এই খবরে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন। তিনি বলেছেন, উত্তর কোরিয়া এমন আগুনে পুড়বে, যা পৃথিবী আগে কখনো দেখেনি। তবে এসব হুমকিতেও কাজ হচ্ছেনা। কারণ উত্তর কোরিয়া তাদের কার্যক্রম চালিয়েই যাচ্ছে। শুধু তাই নয়, দেশটির সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে সেনাবাহিনীও যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন