রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭ ০৬:৩৩:০৩ এএম

এক সময়ের প্রেমিকাকে ক্ষমতা দিচ্ছেন কিম

আন্তর্জাতিক | বুধবার, ১১ অক্টোবর ২০১৭ | ০৪:১৩:০৪ পিএম

ক্ষমতার অলিন্দে নিজের ঘনিষ্ঠ লোকজনদেরই আনছেন কিম জং উন। কয়েকদিন আগেই উত্তর কোরিয়ার এই স্বৈরাচারী শাসক তার দেশের শীর্ষ পরিষদের সদস্য করেছিলেন নিজের বোনকে।

এবার কিম এক সময়ের প্রেমিকাকে ক্ষমতা দিচ্ছেন কিম। ওয়ার্কার্স পার্টির সেন্ট্রাল কমিটিতে নিয়ে এলেন তার প্রাক্তন প্রেমিকা এবং পপতারকা হুয়ান সং উল-কে। রাজনীতি এবং দেশ শাসন থেকে শতহস্ত দূরে থাকা হুয়ানের মতো কাউকে কী করে এত গুরুত্বপূর্ণ কমিটিতে আনা যায়, সেটা দেখে বিস্মিত অনেকেই। কিন্তু স্বৈরাচারী ও দোর্দণ্ড প্রতাপ কিমের সামনে মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছেন না কেউই।

কিমের বদমেজাজ ও খামখেয়ালিপনা সারা বিশ্বের কাছেই আলোচনার বিষয়। হুয়ানও কিন্তু প্রাক্তন প্রেমিকের থেকে খুব একটা পিছিয়ে নেই। কয়েক বছর আগে চীনে গান গাইতে গিয়ে মঞ্চের পর্দা পছন্দ না হওয়ায় অনুষ্ঠানই করেননি হুয়ান। সহ-শিল্পীদের গালাগাল ও মারধর করার অভিযোগ আছে তার বিরুদ্ধে।
আবার শোনা যায়, চুলের ছাঁট পছন্দ না হওয়ায় সেনাবাহিনীর এক আধিকারিক বরখাস্ত করার জন্য কিমের কাছে অনুরোধ জানিয়েছিলেন হুয়ান। তবে যাই হোক না কেন, দেশের সর্বোচ্চ শাসকের প্রাক্তন প্রেমিকার বিরুদ্ধে মুখ খোলার সাহস দেখাননি কেউই।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কূটনীতিবিদ বলেছেন, কিম তাকে হাতের পুতুল করে রাখতে চান। আসলে কিম কাউকে বিশ্বাস করেন না। তাই তিনি চান দেশের সর্বোচ্চ কূটনৈতিক কমিটিতে সকলের তার কাছের লোকজন থাকুক।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন