রবিবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৭ ০২:৫৪:৪৪ পিএম

কুমিল্লায় দোকানিকে ‘মামা’ বলায় সংঘর্ষ, আহত ১০

জেলার খবর | কুমিল্লা | বুধবার, ১১ অক্টোবর ২০১৭ | ০৪:৫৬:৫১ পিএম

তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের ছাত্র ও স্থানীয় ওষুধ ব্যবসায়ীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ইট-পাটকেলের আঘাতে আহত হয়েছেন ছাত্র ও পথচারীসহ কমপক্ষে ১০ জন।

আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পাশের একটি ফার্মেসিতে কলেজের এক ছাত্র ওষুধ কিনতে গিয়ে দোকানিকে ‘মামা’ বলে সম্বোধন করার জেরে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ১১টার দিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

আহত শিক্ষার্থী ও স্থানীয় লোকজন জানান, সকাল ১০টার দিকে মেডিকেল কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্র সাগর ওষুধ কিনতে হাসপাতালের গেটের দক্ষিণ পাশে এমডি ফার্মেসিতে যান। এসময় ওষুধ দোকানি তফাজ্জলকে ‘মামা’ বলে সম্বোধন করায় দোকানি ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন এবং গালমন্দ শুরু করেন। বিষয়টি সাগরের সহপাঠীরা জানার পর ঘটনাস্থলে যান। কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতির একপর্যায়ে দুইপক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় ও ইট-পাটকেলের আঘাতে পাঁচ ছাত্র ও পথচারীসহ ১০ জন আহত হন।

আহত ছাত্ররা হলেন- কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্র সাগর, গালিব মুজাহিদ, অংকন ভৌমিক, দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র শাহজালাল ও শান্তনু।

এদিকে, পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে শিক্ষার্থীদের অভিযোগে ওই দোকানিকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। এতে স্থানীয় ওষুধ ব্যবসায়ীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে এবং তারা লাঠিশোঠা নিয়ে একটি পণ্যবাহী ট্রাক, বেশ কয়েকটি অটোবাইক ভাঙচুরসহ সড়কে অবরোধ সৃষ্টি করে। পরে ঘটনার সমঝোতার আশ্বাসে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মো. মহসিন উজ জামান চৌধুরী জানান, দোকানিকে ‘মামা’ বলায় কথা কাটাকাটির জেরে এ ঘটনা ঘটেছে, যা দুঃখজনক।

কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মোহামদ আবু ছালাম মিয়া জানান, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন