বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮ ১১:২৫:২৮ এএম

বিশ্ব সুন্দরী হওয়ার পর যা যা পাচ্ছেন মানুসি!

বিনোদন | সোমবার, ২০ নভেম্বর ২০১৭ | ০৩:২৯:৫৩ পিএম

১৭ বছর পর বিশ্ব সুন্দরীর মুকুট গেল ভারতের ঘরে। হরিয়ানার মেয়ে মানুসি চিল্লার এই সম্মান বয়ে নিয়ে এলেন ভারতের জন্য। ১০৮ জন প্রতিযোগীকে পেছনে ফেলে মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৭-এর খেতাব জেতেন তিনি। এদিকে তাঁর এই সাফল্যে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বলিউড তারকা থেকে শুরু করে ভারতের সাবেক মিস ওয়ার্ল্ড খেতাবধারীরা। ডিএনএ ইন্ডিয়ার খবরে প্রকাশ, টুইটারে তাঁদের শুভেচ্ছা বার্তায় ভেসেছেন ২০ বছর বয়সী বিশ্বসুন্দরী।

২০০০ সালে ভারতের হয়ে মিস ওয়ার্ল্ড খেতাব জেতা প্রিয়াঙ্কা চোপড়া তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় মানুসিকে নিজের উত্তরাধিকারী হিসবে অভিহিত করেন। শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি লিখেন, ‘আমাদের সফল উত্তরাধিকারী। অভিনন্দন মানুসি চিল্লারকে ২০১৭ সালের মিস ওয়ার্ল্ড খেতাব জেতার জন্য। একে নিজের ভেতর লালন কর এবং শিখতে থাক এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ একে উপভোগ কর। সাবাস।’

১৯৯৪ সালে ভারতের হয়ে মিস ওয়ার্ল্ড খেতাব জেতা সুস্মিতা সেন তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় লিখেন, ‘মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৭ খেতাব জয় করল ভারত। অভিনন্দন মানুসি চিল্লার। অনেক গর্ব হচ্ছে।’

অন্যদিকে বিগ বি অমিতাভ বচ্চন তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় লিখেছেন, ‘এবারের মিস ওয়ার্ল্ড ভারত থেকে। গর্ব এবং খুশি। মানুসি চিল্লার অভিনন্দন। বলিউড তারকা রিতেশ দেশমুখ তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় লিখেন, ‘অভিনন্দন, মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৭, মানুসি চিল্লার, ভারতকে গর্বিত করার জন্য।’

অর্জুন কাপুর তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় লিখেন, অভিনন্দন মানুষী চিল্লার, সাবাস। অনুপম খের তাঁর শুভেচ্ছা বার্তায় লিখেন, ‘প্রিয় মানুসি চিল্লার। ধন্যবাদ ১৭ বছর পর বিশ্বসুন্দরীর মুকুট ভারতে ফিরিয়ে নিয়ে আসার জন্য। মাকে নিয়ে তোমার অসাধারণ উত্তরের জন্য ধন্যবাদ। অভিনন্দন। গোটা ভারত ভালোবাসা নিয়ে তোমাকে স্বাগত জানানোর জন্য অপেক্ষা করছে। উষ্ণতা ও গর্ব।’

টুইটারে এসব অভিনন্দনের জবাবও দিয়েছেন মানুসি। মিস ওয়ার্ল্ড হওয়ার পর তাঁর প্রতিক্রিয়া জানিয়ে টুইটে লিখেন, ‘ধন্যবাদ সবাইকে, যারা আমার প্রতি ভালোবাসা ও সমর্থন জানিয়েছেন এবং প্রার্থনা করেছেন।’

এবারের মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় দ্বিতীয় হয়েছেন মিস মেক্সিকো আন্দ্রে মেজা এবং তৃতীয় হয়েছেন মিস ইংল্যান্ড স্টিফেন হিল। চীনের সানইয়া সিটি এরিয়াতে ঘোষণা করা হয় মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৭-এর বিজয়ীর নাম। বিজয়ী মানুসির মাথায় মুকুট পরিয়ে দেন মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৬ স্টিফেনি ডেল ভ্যাল্লে। এবারের আসরে অংশ নিয়েছিলেন বাংলাদেশের জেসিয়া ইসলাম। তবে সেমিফাইনালে বাদ পড়েন তিনি।

এ কথা হল ‘বিশ্ব সুন্দরী’ হওয়ার। এখন প্রশ্ন হল কি কি সুযোগ সুবিধা পাচ্ছেন মানুসি?

তিনি পাবেন –

১. আগামী এক বছর বিশ্ব ভ্রমণ করার সুযোগ পাবেন।

২. মানুসি পাচ্ছেন বিশ্বের সেরা জুয়েলারি ব্র্যান্ডের অলঙ্কার।

৩. এ ছাড়া বিশ্বের তাবড় ফ্যাশন ডিজাইনারের ডিজাইন করা পোশাকও পাচ্ছেন তিনি।

৪. যে কসমেটিক ব্র্যান্ড বিশ্বসুন্দরী ২০১৭ প্রতিযোগিতার স্পনসর, তাদের পক্ষ থেকে গোটা এক বছর ধরে প্রসাধন সামগ্রীও পাবেন তিনি।

৫. এ ছাড়া বিশ্ব জুড়ে সমাজসেবামূলক কাজ করার সময় তিনি সেখান থেকে সাম্মানিক অর্থও পাবেন।

৬. শোনা যাচ্ছে মানুষী ছিল্লর এই খেতাব জয়ের জন্য বিশ হাজার মার্কিন ডলার পাচ্ছেন। তবে এই পুরস্কার অঙ্কটি নিয়ে বিতর্ক রয়েছে।

গ্রাম থেকে উঠে আসা সেই মানশি এখন কোটি কোটি তরুণীর আদর্শ!

১৯৯৭ সালের ১৪ মে ভারতের হরিয়ানার একটি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন মানশি। তার বাবা ডক্টর মিত্র বসু চিল্লার ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের একজন বিজ্ঞানী। মা নীলাম চিল্লার ইনস্টিটিউট অব হিউম্যান বিহেভিয়ার অ্যান্ড অ্যালাইড সায়েন্স-এর সহযোগী অধ্যাপক ও নিউরোকেমিস্ট্রি বিভাগের প্রধান। মানশির আরো দুজন ভাই-বোন রয়েছে। এর মধ্যে একজন এলএলএম পড়ছেন।

দিল্লির সেইন্ট থমাস স্কুল ও মিরান্ডা হাউসের শিক্ষার্থী ছিলেন মানশি। বর্তমানে ভগত ফুল সিং গভঃ মেডিক্যাল কলেজে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করছেন। তিনি গাইনি অনকোলজি বিষয়ে পড়ছেন।



গত ২৫ জুন যশ রাজ স্টুডিওতে অনুষ্ঠিত ফেমিনা মিস ইন্ডিয়া ২০১৭ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হন মানশি চিল্লার। এছাড়া এতে মিস ফটোজেনিক অ্যাওয়ার্ডও জেতেন তিনি। ছোটবেলায় দাদির শাড়ি পরতেন এখন তিনি বিশ্বের অন্যতম সেরা সুন্দরী। হরিয়ানার একটি গ্রাম থেকে আসা মানশি এখন কোটি কোটি তরুণীর আদর্শ। তবে তার আদর্শ ভারতের হয়ে প্রথম মিস ওয়ার্ল্ড খেতাব জেতা রেইতা ফারিয়া। তিনিও পেশায় একজন চিকিৎসক ছিলেন। চলতি ফেমিনা মিস ইন্ডিয়া খেতাব জেতার আগে স্কুল ও কলেজের বিভিন্ন সুন্দরী প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হন। বেশ কয়েকটি বিজ্ঞাপনেও কাজ করেছেন তিনি।

তার দাদি জানান, ছোটবেলা থেকেই সাজগোজের শখ ছিল মানশির। অন্যরা যে সময় পুতুল খেলত ও তখন কসমেটিকস নিয়ে পড়ে থাকত। নিত্য নতুন পোশাক পরে সাজতে খুব পছন্দ করত। মানশি বেশ স্বাস্থ্য সচেতন। দিনের নির্দিষ্ট সময় জিমে গিয়ে শারীরিক কসরত করতে তার কখনো ভুল করে না। ছোটবেলা থেকেই বিদ্যালয়ে বিভিন্ন প্রতিযোগিতা ও সামাজিক কর্মকাণ্ডে অংশ নিত। মানশি প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত একজন বেলে ড্যান্সার। এছাড়া কুচিপুরি নৃত্যে প্রাতিষ্ঠানিক তালিম নিয়েছে। সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর বিষয়ে সচেতনতা তৈরির কাজও করেছে।

এই বিশ্ব সুন্দরীর জীবনে মায়ের প্রভাব সবচেয়ে বেশি বলে জানিয়েছেন মানশি। পেশায় একজন চিকিৎসক হওয়া সত্বেও মেয়ের সব বিষয়ে দেখাশোনা ও সিদ্ধান্ত নিতে সাহায্য করেছেন তার মা।

সিনেমা দেখতে খুবই পছন্দ করেন মানশি। বর্তমানে তার প্রিয় সিনেমার তালিকায় রয়েছে আমির খানের দঙ্গল। তবে ভারতীয় অভিনেতাদের মধ্যে এই সুন্দরীর পছন্দ হৃতিক রোশানকে। হলিউডের মধ্যে প্রিয় অভিনেতার তালিকায় রয়েছেন হিউ জ্যাকম্যান ও লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও।

ভ্রমণে আগ্রহ রয়েছে মানশির। ভারতের পাশাপাশি বিদেশের বিভিন্ন আকর্ষণীয় পর্যটন স্থানে ভ্রমণ করেছেন মানশি। বলতে গেলে ভ্রমণ তার শখ। সময় পেলেই ব্যাগ গুছিয়ে ভ্রমণে বেড়িয়ে পড়েন এই সুন্দরী।

পাঁচ ফুট আট ইঞ্চি উচ্চতার মানশি অনেক প্রত্যাশা নিয়েই চীনে অনুষ্ঠিত এবারের সুন্দরী প্রতিযোগিতায় গিয়েছিলেন। শুরু থেকেই নিজের যোগ্যতার পরিচয় দিয়ে আসছিলেন। শেষ পর্যন্ত সেরার মুকুট জিতে সকলের প্রত্যাশা পূরণ করেছেন। এখন ‘প্রজেক্ট শক্তি’র আওতায় স্বাস্থ্যসম্মত মেন্সট্রুয়েশন নিয়ে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন তিনি।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন