শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৬:১৩:৫৬ পিএম

‘এদেশে হিন্দু-মুসলিম মিলেমিশে সুখে-শান্তিতে বসবাস করছে’

জেলার খবর | মঙ্গলবার, ২৮ নভেম্বর ২০১৭ | ০১:০৯:৩৪ এএম

হাজার বছর ধরে বাংলাদেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রয়েছে। এদেশে হিন্দু-মুসলিম একসাথে মিলেমিশে সুখে-শান্তিতে বসবাস করছেন বলে মন্তব্য করেছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক।

সোমবার যশোরের কেশবপুর পৌরসভায় কেশবপুর পাইলট স্কুল এন্ড কলেজে বিজয়া পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক সংসদ সদস্য শ্রী পংকজ দেবনাথ ও সংসদ সদস্য শ্রী স্বপন ভট্টাচার্য।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এদেশে অসাম্প্রদায়িক রাজনীতির বীজ বপন করেন এবং লালন-পালন করেন। তার প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলের উন্নয়নে কাজ করছে। যারা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করতে চায়, তিনি তাদের ব্যাপারে সকলের প্রতি সচেতন থাকার আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদ কেশবপুর উপজেলা শাখা এই অনুষ্ঠান আয়োজন করে। শ্রী গৌতম রায়ের সঞ্চালনায় উক্ত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি ও দেশবরেণ্য সাংবাদিক শ্রী শ্যামল সরকার।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অসীম কুমার কুন্ডু, কেশবপুরের পৌর মেয়র রফিকুল ইসলাম, নওয়াপাড়া পৌরসভার মেয়র সুশান্ত দাস শান্ত, ওসি এস এম আনোয়ার হোসেন প্রমূখ ।

বাংলাদেশ আওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারন সম্পাদক ও সাংসদ পংকজ দেবনাথ বলেন, জাতির জনক জঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে বাংলাদেশে অসম্প্রদায়িক রাজনীতি প্রতিষ্ঠিত হয়। বর্তমানে তাঁর সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা অসম্প্রদায়িক রাজনীতি অব্যহত রেখেছেন।

যশোর-৫ আসনের সাংসদ স্বপন ভট্টাচার্য বলেছেন, ধর্ম যার যার উৎসব সবার। দেশের সকল সম্প্রদায়ের ধর্মীয় উৎসব সকল সম্প্রদায়ের মানুষ এক হয়ে পালন করে সাম্প্রদায়িক সম্প্রিতির বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছে। অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথিদের পুজা উদযাপন পরিষদের পক্ষ থেকে ক্রেষ্ট প্রদান ও উত্তরীয় পরিয়ে দেয়া হয়।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন