সোমবার, ২২ জানুয়ারী ২০১৮ ০৫:৪৫:৫৭ পিএম

অভাবে মারা গিয়েছে যে বলিউড তারকারা! (ছবিসহ)

বিনোদন | শুক্রবার, ১ ডিসেম্বর ২০১৭ | ০৪:৩২:৩৯ পিএম

বিশ্বের অন্যতম বড় চলচ্চিত্র ইন্ডাস্ট্রি বলিউড। প্রতি বছর অনেক সিনেমা নির্মিত হচ্ছে এ পাড়ায়। এ বছরও নির্মিত হয়েছে অনেক ব্যবসা সফল চলচ্চিত্র। ঘটেছে নানা ঘটনাও।

বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে প্রায়শই ঘটছে চমকপ্রদ বিভিন্ন ঘটনা। অভাবে মারা গিয়েছেন যে বলিউড তারকারা, তাদের নিয়ে সাজানো হয়েছে এ প্রতিবেদন ।

► মীনা কুমারী— মাত্র ৪ বয়সে অভিনয় শুরু করেন। ‘ট্র্যাজেডি কুইন’ আখ্যা দেওয়া হয়। মৃত্যুর সময়ে চিকিৎসা করানোরও টাকা ছিল না।

► ভরত ভূষণ— এক সময়ে জনপ্রিয় অভিনেতা ছিলেন। জুয়া খেলে অনেক টাকা হারিয়েছিলেন। শেষ বয়সে বস্তিতে থাকতেন।

► নলিনী জয়ন্ত— ২০১০ সালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়। মৃত্যুর সময়ে পরিবারও তাঁর পাশে ছিল না।

► এ কে হাঙ্গাল— ২০১২ সালে প্রয়াত হন। শেষ বয়সে ওষুধ কেনারও টাকা ছিল না।

► রুবি মায়েরস— এই ইহুদী অভিনেত্রী দাদা সাহেব ফালকে পুরস্কার জেতেন। ১৯৮৩ সালে বাড়ি থেকে উদ্ধার হয় মৃতদেহ। শেষ জীবনে দারিদ্রের কবলে পড়েছিলেন বলে জানা যায়।

► পরবিন বাবি— বলিউডের এক সময়ের লাস্যময়ী। কিন্তু মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েন শেষ বয়সে। মৃত্যুর পরে সম্পত্তি বলতে কিছুই ছিল না।

► ভিমি— ১৯৬৭ সালে বিআর চোপড়ার ‘হামরাজ’ ছবি দিয়ে শুরু করেন অভিনয়। অল্প বয়সে মৃত্যু হয়। এতই দরিদ্র ছিলেন যে, একটি রিকশা করে তাঁর দেহ শ্মশানে নিয়ে যাওয়া হয়।

► ভগবান দাদা— একাধারে অভিনেতা, পরিচালক ও লেখক ছিলেন। পর পর ফ্লপ ছবি হওয়ায় নিজের ২৫ বেডরুমের বাড়ি বিক্রি করে বস্তিতে গিয়ে ওঠেন। ২০০২ সালে মৃত্যু হয়।

► কাক্কু মোরে— অ্যাংলো-ইন্ডিয়ান এই অভিনেত্রী খুব ভাল নাচতেন। বেশ কয়েকটি হিন্দি ছবিতে তাঁর নাচের দৃশ্য জনপ্রিয় হয়। বলিউডে হেলেন আসার পরেই দারিদ্রের শিকার হন তিনি।


খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন