সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮ ১১:১৬:৩২ এএম

রোহিঙ্গা ইস্যুতে বিশ্বের মানুষের সমর্থন পেয়েছি: প্যারিসে প্রধানমন্ত্রী

জাতীয় | বুধবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ | ০৪:৪১:৩৮ পিএম

প্রতিবেশী মিয়ানমারের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রেখে রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে বাংলাদেশ সরকারের প্রচেষ্টার কথা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেছেন, ‘সকলের সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারো সঙ্গে বৈরিতা নয়। এটাই জাতির পিতা শিখিয়েছেন। এ পররাষ্ট্র নীতিতে আমরা বিশ্বাস করি।’

মঙ্গলবার স্থানীয় সময় রাত ৯টার দিকে ফ্রান্সের ইন্টারকন্টিনেন্টাল প্যারিস লা গ্র্যান্ড হোটেলে প্রবাসী বাংলাদেশিদের দেওয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। শেখ হাসিনা বলেন, ‘যেহেতু আমাদের একেবারে প্রতিবেশী, তাদের (মিয়ানমার) সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক নষ্ট হবে না। কিন্তু এই সমস্যাটা তাদের সৃষ্টি করা। এই সমস্যা তাদের নিরসন করতে হবে এবং মিয়ানমারকে তাদের নাগরিকদের ফেরত নিতে হবে।’

এক্ষেত্রে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সমর্থন পাওয়ার কথা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, “প্রত্যেকের সমর্থন আমরা পেয়েছি।…সকল রাষ্ট্র যেভাবে বাংলাদেশকে সমর্থন দিয়েছে…। একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সময় আমরা সমর্থন পেয়েছি সারা বিশ্বের মানুষের। সব দেশের সরকারের না, কিন্তু সারা বিশ্বের মানুষের সমর্থন পেয়েছি আমরা। আর এই ঘটনায় (রোহিঙ্গা সঙ্কট) পৃথিবীর প্রায় সকল দেশই বাংলাদেশকে সমর্থন দিচ্ছে।”

রোহিঙ্গা শরণার্থী
রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠানোর বিষয়ে মিয়ানমারের সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক সইয়ের কথাও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। শেখ হাসিনা বলেন, “আমাদের প্রচেষ্টা থাকবে যে তাদের ফেরত পাঠাব। সেজন্য কূটনৈতিক প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে এ সমস্যার সমাধান করতে পারব।”

রাখাইনে স্থানীয় বাহিনীর সংঘাতে মিয়ানমার থেকে বলপূর্বক বিতাড়নের শিকার হয়ে এ পর্যন্ত প্রায় ১০ লাখের বেশি মানুষ বাংলাদেশে চলে এসেছে বলে জানান প্রধানমন্ত্রী।

‘জনগণের ভোটে আমরা জয়ী হব’

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ বিজয়ী হবে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করে শেখ হাসিনা বলেন, “সামনে ইলেকশন। ইলেকশনে আমাদের জয়ী হতে হবে। ইনশাআল্লাহ, জনগণের ভোটে আমরা জয়ী হব। বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে।”

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, “জনগণ আমাদের পক্ষে। ভোট দেবার জন্য প্রস্তুত, ভোট দেবে। কেউ যেন এখানে কোনো ষড়যন্ত্র করতে না পারে। নিজেদের মধ্যে বিভক্তি থাকলে সেখান থেকে ষড়যন্ত্র ঢুকতে পারে।”

দলীয় নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার তাগিদ দিয়ে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বলেন, “ঐক্যবদ্ধ থাকলে কোনো ষড়যন্ত্রেই কিছু করতে পারবে না।”

ওয়ান প্ল্যানেট সামিট উপলক্ষে তিন দিনের এই সফরে প্রধানমন্ত্রী থাকছেন ইন্টারকন্টিনেন্টাল প্যারিস- লো গ্রান্ড হোটেলে। সেখানেই মঙ্গলবার রাতে ওই নাগরিক সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়। ইউরোপের বিভিন্ন দেশ থেকেও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ওই অনুষ্ঠানে যোগ দেন। অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী, ফ্রান্সে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত কাজী ইমতিয়াজ হোসেন প্রমুখ।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন