বুধবার, ২৪ জানুয়ারী ২০১৮ ০২:০০:২৯ পিএম

আগামীকাল বন্ধ থাকবে যেসব রাস্তা

নগর জীবন | শুক্রবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭ | ০৩:৩৪:২২ পিএম

আগামী ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে জাতীয় প্যারেড স্কয়ারে সম্মিলিত বাহিনীর কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানের কারণে ওই এলাকার কয়েকটি সড়কে যানবাহন চলাচল থাকবে নিয়ন্ত্রিত।

ঢাকা মহানগর পুলিশ শনিবারের ওই অনুষ্ঠানের অতিথিদের ছাড়া অন্য সবাইকে গাড়ি নিয়ে সকাল ৭টা হতে দুপুর ১টা পর্যন্ত বিকল্প সড়কে চলাচলের অনুরোধ করেছে।

যে সব সড়ক ব্যবহার করার কথা বলা হয়েছে, সেগুলো হল-

১। খেজুর বাগান ক্রসিং হতে উড়োজাহাজ ক্রসিং-রোকেয়া সরণী হয়ে মিরপুর-১০ নম্বর গোলচত্বর পর্যন্ত।

২। শ্যামলী শিশু মেলা ক্রসিং হতে আগারগাঁও লাইট ক্রসিং হয়ে রোকেয়া সরণী পর্যন্ত।

৩। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় এর সামনে নতুন সড়ক দিয়ে আগারগাঁও লিংক রোড পর্যন্ত।

৪। বিজয় সরণী ক্রসিং-উড়োজাহাজ ক্রসিং, ক্রিসেন্ট লেক হয়ে গণভবন ক্রসিং পর্যন্ত।

৫। প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় গ্যাপ/শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় গ্যাপ হতে গণভবন স্কুল ক্রসিং হয়ে পরিকল্পনা কমিশন হয়ে বিআইসিসি ক্রসিং পর্যন্ত।

অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথিদের আমন্ত্রণপত্রের সঙ্গে সরবরাহ করা স্টিকার গাড়ির উইন্ড স্ক্রিনে যথাযথ স্থানে প্রদর্শন করতে বলেছে পুলিশ। পাশাপাশি আমন্ত্রণপত্রের সঙ্গে দেওয়া পথ নির্দেশনা অনুযায়ী নির্ধারিত ফটক দিয়ে প্যারেড স্কয়ারে ঢুকতে বলা হয়েছে।

একই সঙ্গে নির্দেশিত স্থানে গাড়ি রাখতে এবং চালকদের গাড়ির কাছে থাকতে পরামর্শ দেওয়া হয়। শনিবার সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পাঞ্জলি অর্পণ উপলক্ষে ঢাকা হতে আমিন বাজার হয়ে সাভার স্মৃতিসৌধ পর্যন্ত সড়কে যানচলাচলেও কিছুটা নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

ওই দিন ভোর সাড়ে ৪টা হতে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও আমন্ত্রিত অতিথিরা স্মৃতিসৌধে যাবেন। এ জন্য ভোর ৩টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত বাস, মিনিবাস, ট্রাক, লরীসহ বড় গাড়িগুলোকে গাবতলী-আমিন বাজার-সাভার সড়ক বাদ দিয়ে বিকল্প রাস্তা হিসেবে ঢাকা বিমানবন্দরে সড়ক-আব্দুল্লাহপুর ক্রসিং-আশুলিয়া সড়ক ব্যবহার করতে বলেছে পুলিশ।

একইভাবে আরিচা হতে আমিন বাজার হয়ে ঢাকাগামী যানবাহনগুলোকে ওই সময় নবীনগর বাজার হতে আশুলিয়া হয়ে ঢাকায় ঢুকতে বলা হয়েছে। এছাড়া টাঙ্গাইল হতে আশুলিয়া হয়ে ঢাকাগামী যানবাহনসমূহ কালিয়াকৈর-গাজীপুর চৌরাস্তা-টঙ্গী হয়ে ঢাকায় প্রবেশের জন্য বলা হয়েছে।



বঙ্গভবন কেন্দ্রিক:

এছাড়া, বিজয় দিবস উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী, মন্ত্রীবর্গ, সামরিক, আধা-সামরিক, দেশী-বিদেশী কূটনৈতিকবৃন্দ, খেতাব প্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধাসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ মহামান্য রাষ্ট্রপতির সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন। উক্ত অনুষ্ঠানে আগত অতিথিবৃন্দের যানবাহন সুষ্ঠুভাবে চলাচলের জন্য বঙ্গভবনের আশপাশ এলাকায় চলাচলরত গাড়ি চালক বা ব্যবহারকারীদের দুপুর ১২টা হতে বঙ্গভবনের অনুষ্ঠান শেষ না হওয়া পর্যন্ত নিম্নোক্ত গমনাগমনের পথ অনুসরণের জন্য বলা হয়েছে।

১। জিরো পয়েন্ট হতে গুলিস্থান আন্ডারপাস-রাজউক ক্রসিং পর্যন্ত সকল প্রকার বাণিজ্যিক যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। শুধু ফ্লাইওভার ব্যবহারকারী যানবাহনসমূহ প্রবেশ করতে পারবে।

২। আহাদ বক্স হতে ইত্তেফাক মোড় পর্যন্ত সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে।

৩। আলিকো গ্যাপ হতে দিলকুশা বাণিজ্যিক এলাকা ও রাজউক ক্রসিং পর্যন্ত সকল প্রকার গাড়ি প্রবেশ নিষিদ্ধ থাকবে।

৪। পার্ক রোডের উত্তর মাথা হতে ইত্তেফাক অভিমুখী কোন প্রকার যানবাহন চলাচল করা যাবে না।

৫। শাপলা চত্বর ও দৈনিক বাংলা হতে রাজউক-গুলিস্থানগামী সকল বাস দৈনিক বাংলা, ইউবিএল ক্রসিং, প্রেসক্লাব হয়ে চলাচল (আসা-যাওয়া) করবে কিংবা অন্য কোন সুবিধাজনক বিকল্প রাস্তা ব্যবহারের জন্য বলা হয়েছে।

৬। দৈনিক বাংলা হতে রাজউক অভিমুখী ও ২৪ তলা হতে রাজউক অভিমুখী কোন বাণিজ্যিক গাড়ি চলাচল করবে না।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের ট্রাফিক বিভাগ মহান বিজয় দিবস উদযাপনকালে উপরোক্ত অনুষ্ঠানসমূহ চলাকালীন যানবাহন চলাচলে শৃঙ্খলা রক্ষা ও যানজট এড়ানোর লক্ষ্যে জনসাধারণের সর্বাত্মক সহযোগিতা কামনা করেছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন