রবিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯ ১১:৫৯:১৩ এএম

শত বছরেও অতিক্রম করা যাবে না যে গাছের ছায়া!

ধর্ম | শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৭ | ০৬:৩১:২২ পিএম

আল্লাহপাক রব্বুল আলামিন এই সারা বিশ্ব নভোমন্ডল ভূ-মন্ডল মাত্র ছয় দিনে সৃষ্টি করেছেন। মানুষের জন্যে সৃষ্টি করেছেন, বিভিন্ন প্রজাতির গাছ-পালা, পশুপাখি, পাহাড়-পর্বত, নদী নালা, সমুদ্র, খাল বিল সহ আরো কত কিছু। গাছ হচ্ছে আল্লাহর আসীম সৃষ্টির বিশেষ নিদর্শনের একটি। আল্লাহর সেই নিদের্শনাবলি গুনে শেষ করা যাবে না। ‘যদি কবির ভাষায় বলা যায়, সাগরের জলকে কালি করে, গাছের পাতাকে খাতা করে, তোমার মহিমা লিখা শেষ হবে না, লিখি কভু যদি জীবন ভরে।’

আল্লাহপাক রব্বুল আলামিন দুনিয়াতেই অনেক বড় বড় গাছ সৃষ্টি করেছেন। তবে সেগুলোর সীমা পরিসীমা নির্ণয় করা যায়। তবে তিনি জান্নাতে এমন কিছু গাছ। সৃষ্টি করেছেন যার পরিধি কখনো কল্পনাও করা যায় না। জান্নাতে এমন একটি গাছ আছে যার শুধু ছায়াটি অতিক্রম করতে সময় লাগবে ১০০ বছরেরও বেশি। তাহলে একবার চিন্তা করেন সেই গাছটি কতো বড় হতে পারে!

হাদীসে এসেছে, সাহল ইবনু সা’দ (রাযি.) থেকে বর্ণিত, রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, জান্নাতের মাঝে এমন একটি গাছ রয়েছে, যার ছায়ায় একজন আরোহী একশ’ বছর ভ্রমণ করেও তা শেষ করতে পারবে না। মুসলিম হাদীস নং (৭০৩০-(৮/২৮২৭)

অন্য আরেক বর্ণনায় এসেছে,আবু হুরাইরাহ (রাযি.) রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে বর্ণনা করে বলেন, জান্নাতে এমন একটি বৃক্ষ আছে, যার ছায়ায় একজন আরোহী একশ’ বছর পর্যন্ত সফর করতে থাকবে। মুসলিম হাদীস নং ৭০২৮-(৬/২৮২৬) সুবহানআল্লাহ।

তাহলে একবার চিন্তা করার দরকার, জান্নাতে একটি গাছ যদি এত বিশাল হয়, তবে জান্নাতে পরিধি কত বড় হবে! আর যেই আল্লাহপাক রব্বুল আলামিন এত বিশাল জান্নাত সৃষ্টি করেছেন, তিনি কত মহান। আল্লাহু আকবার

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন