বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮ ০৩:১১:২৪ এএম

লঙ্কানদের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টে টাইগার একাদশে থাকছে এই চমক!

খেলাধুলা | মঙ্গলবার, ৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ | ০৪:০৮:১৬ পিএম

সদ্য সমাপ্ত চট্টগ্রাম টেস্টের দলে অনেকটা চমক জাগিয়েই জায়গা করে নেন স্পিনার আব্দুর রাজ্জাক। সাড়ে তিন বছর পর ডাক পেয়েও মূল একাদশে জায়গা হয়নি তার।

বরং তুলনামূলক নবীন এবং ওই টেস্টেই অভিষিক্ত স্পিনার সানজামুলের কাছে জায়গা হারান তিনি। ড্র টেস্টে সানজামুলের প্রাপ্তি ১৫৩ রান দিয়ে এক উইকেট। ফলে পরের টেস্টে তার স্থলে রাজ্জাকের টেস্ট একাদশে ফেরা অনেকটাই উজ্জ্বল। লঙ্কানদের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টে টাইগার একাদশে থাকছে এই চমক!

গতকাল (৪ ফেব্রুয়ারি) মিরপুরে অনুষ্ঠিতব্য পরবর্তী টেস্টের জন্য ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে বিসিবি। ঘোষিত স্কোয়াডে জায়গা হারিয়েছেন সানজামুল এবং পেসার রুবেল হোসেন।

আর দলে যুক্ত হয়েছেন ব্যাটসম্যান সাব্বির রহমান। সানজামুলের বাদ পড়াটা স্বাভাবিক। কারণ, চট্টগ্রামের স্পিন বান্ধব পিচে ১৫৩ রান দিয়ে এক উইকেট লাভ করেন তিনি।

শ্রীলংকার মতো দলের বিপক্ষে যেখানে দলের অধিনায়ক, মূল বোলার এবং অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান অনুপস্থিত, সেই ম্যাচে সানজামুলের মতো নতুন খেলোয়াড়ের অভিষেক তাও রাজ্জাকের মতো অভিজ্ঞ বোলারকে বসিয়ে, আশ্চর্যজনক সিদ্ধান্ত বই কি!

সানজামুল ইসলাম- ৮৭ নম্বর টেস্ট ক্যাপ!চট্টগ্রাম টেস্টে শ্রীলংকা বিপক্ষে বাংলাদেশের ৮৭তম খেলোয়াড় হিসেবে অভিষেক হয় বাঁ-হাতি স্পিনার সানজামুল ইসলামের।

বাংলাদেশের হয়ে অভিষেকেই বল হাতে অন্তত ১০০ রান, কিন্তু ১৫০ রানের কম খরচ করে উইকেটশুন্য থাকা পঞ্চম বোলার হলেন সানজামুল। এমন একজন বোলারকে দলে নেওয়ার পিছনে টিম ম্যানেজমেন্টের যুক্তি ছিল, সানজামুল খেলার ভিতরে ছিলেন!

আর রাজ্জাককে না নেওয়ার পিছনে কারণ হিসেবে টেকনিক্যাল ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ সুজনের বক্তব্য, রাজ্জাক অনেকদিন জাতীয় দলের সেটআপে ছিলেন না। তাহলে যিনি এর আগে কখনো টেস্ট খেলেন নি, তার সেটআপ বেশি ছিল?

কদিন আগেই দেশের হয়ে প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেটে ৫০০ উইকেট নেওয়ার কীর্তি গড়েছেন রাজ্জাক। ওয়ানডে ক্রিকেটের একসময় নিয়মিত সদস্য রাজ্জাক টেস্টেও বল হাতে খারাপ করেন নি, ১২টি টেস্ট খেলে ১৮ ইনিংসে বল করে ২৩টি উইকেট নিয়েছেন তিনি।

ফলে সবাই ভেবেছিলেন দীর্ঘদিন পর দলে ডাক পাওয়া রাজ্জাক চট্টগ্রাম টেস্ট দিয়েই প্রত্যাবর্তন করবেন। তাছাড়া সাকিবের অনুপস্থিতি এক্ষেত্রে আরও বেশি জওর দেওয়ার মতো ছিল। কারণ রাজ্জাকের অভিজ্ঞতা অনেকদিনের। অথচ সেই টেস্টে সাকিবের বিকল্প হিসেবে কি না রাখা হলো সানজামুলকে!

এদিকে ঢাকা টেস্টেও সাকিবের অনুপস্থিতি নিশ্চিত হয়েছে। আর সানজামুল বাদ পড়েছেন। ফলে ৩৫ বছর বয়সী এই বাঁহাতি স্পিনারকে আবারো দেখা যেতে পারে সাদা পোশাকে।

সর্বশেষ এই শ্রীলংকার বিপক্ষেই ২০১৪ সালে চট্টগ্রামে দেখা গিয়েছিল রাজ্জাককে। ১৫৩টি ওয়ানডেতে ২০৭ এবং ৩৪ টি-টোয়েন্টিতে ৪৪ উইকেট অর্জন করা রাজ্জাককে টেস্টের মূল একাদশে ফেরা এখন নির্বাচকদের মর্জির উপর নির্ভর করছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন