রবিবার, ২২ জুলাই ২০১৮ ০১:১৮:৩৮ এএম

২২ ফেব্রুয়ারি শাকিব-অপুর ডিভোর্স কার্যকর

বিনোদন | সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ | ১২:৪৫:২০ পিএম

গত বছরের ২২ নভেম্বর অপুকে ডিভোর্স লেটার পাঠান শাকিব। ডিএনসিসির পারিবারিক আদালত সূত্র বলছে, কোনো পক্ষ তালাকের আবেদন করলে আদালতের কাজ হচ্ছে ৯০ দিনের মধ্যে ডেকে সমঝোতার চেষ্টা করা। এরপরও যদি তারা কোনো সমঝোতায় না পৌঁছায় তাহলে ৯০ দিন পর তালাক কার্যকর হয়ে যায়। আর সেই সময়টা শেষ হচ্ছে আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি।

এদিন চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের সঙ্গে বাংলাদেশের শীর্ষ চলচ্চিত্র নায়ক শাকিব খানের তালাক কার্যকর হচ্ছে। তাদের সম্পর্কে লিখতে হবে ‘সাবেক দম্পতি’।

ডিএনসিসি প্রথম সালিশে অনুপস্থিত ছিলেন শাকিব। এরপর ১২ ফেব্রুয়ারি নতুন দিন নির্ধারণ করে সালিশির। আজ সোমবার সেই দিনটি। কিন্তু এবারো বৈঠকে হাজির থাকার সম্ভাবনা নেই শাকিব খানের। কারণ বর্তমানে তিনি অস্ট্রেলিয়ায় ‘সুপার হিরো’ ছবির শুটিংয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন।

এদিকে শাকিব খান বলেন, ‘এটা শেষ হোক, আমি তাই চাই। সবকিছু আইনিভাবে সুষ্ঠু সমাধান হোক, এটাই আমি চাই।’

শাকিব আরো বলেন, ‘বৈবাহিক সম্পর্ক রাখার মতো পারস্পরিক সম্মান আর নেই আমাদের দু’জনের মধ্যে। তাই এ নিয়ে আর কোনোকিছু ভাবতে চাই না। শুভকামনা থাকবে ওর জন্য সবসময়, কারণ ও আমার বাচ্চার মা। শুধু স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ের ইতি ঘটছে আমাদের।’

তিনি জানালেন, তালাক কার্যকর হওয়ার পর অপু বিশ্বাসকে বিয়ের দেনমোহর বাবদ ৭ লাখ টাকা পরিশোধ করবেন শাকিব খান। ছেলের খরচ বাবদ এখন প্রতিমাসে অপুকে ১ লাখ দিবেন। এই টাকা নগদে অথবা চেকে দিবেন তিনি।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন