রবিবার, ২০ মে ২০১৮ ০৪:১৭:৩৩ পিএম

এস্পানিওলের মাঠে রিয়ালের হার

খেলাধুলা | বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ | ১০:০১:৩৬ এএম

বারবার খেই হারানো রিয়াল মাদ্রিদ মৌসুমের শেষ ভাগে এসে ঘুরে দাঁড়ানোর আভাস দিয়েছিল। কিন্তু ছন্দ ধরে রাখতে পারলো না তারা। লা লিগায় এস্পানিওলের কাছে হেরে গেছে গতবারের চ্যাম্পিয়নরা।

মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) ঘরের মাঠে ১-০ ব্যবধানে জিতেছে এস্পানিওল। ২০০৭ সালের পর রিয়ালের বিপক্ষে এটাই তাদের প্রথম জয়। ম্যাচ জুড়ে এলোমেলো ফুটবল খেলা জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা লিগে টানা চার জয়ের পর আবারো হারের তেতো স্বাদ পেল।

আগামী ৬ মার্চ চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ ষোলোর ফিরতি লেগে পিএসজির মাঠে খেলতে যাবে টানা দুবারের চ্যাম্পিয়নরা। গুরুত্বপূর্ণ এ ম্যাচের আগে লিগ টেবিলের নিচের দিকের দলের বিপক্ষে এমন হতশ্রী পারফরম্যান্স নিশ্চিতভাবেই মাদ্রিদ শিবিরের জন্য সতর্কবার্তা।

চোটের কারণে আগে থেকেই বাইরে লুকা মদ্রিচ, টনি ক্রুস ও মার্সেলো। ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো বিশ্রামে। সেই সঙ্গে আক্রমণভাগের আরেক সদস্য করিম বেনজেমাকে বেঞ্চে রেখে একাদশ সাজান জিদান।

মাঝমাঠ ও আক্রমণভাগে গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়দের ছাড়া নামা রিয়ালের প্রথমার্ধের পারফরম্যান্স ছিল হতাশাজনক। বিরতির পর উন্নতি তো হয়ইনি, বরং হয়ে ওঠে দৃষ্টিকটু।

অষ্টম মিনিটে এগিয়ে যেতে পারতো রিয়াল; কিন্তু গোলমুখে গ্যারেথ বেলের হেড হাত বাড়িয়ে ঠেকিয়ে দেন গোলরক্ষক।

২৬ মিনিটে গোল খেতে বসেছিল অতিথিরা। রাফায়েল ভারানের ভুলে বল পেয়ে যান জেরার্দ মোরেনো। ডান দিক থেকে তার শট কেইলর নাভাসের পায়ে লেগে পোস্টের একটু বাইরে দিয়ে চলে যায়। তবে রেফারি চোখ এড়িয়ে যাওয়ায় কর্নার পায়নি স্বাগতিকরা।

ম্যাচের শুরু থেকে নিজেকে মেলে ধরতে ব্যর্থ হওয়ার হতাশাতেই কি-না মাঝমাঠে প্রতিপক্ষের এক খেলোয়াড়কে অহেতুক পিছন থেকে ফাউল করে হলুদ কার্ড দেখেন বেল।

দ্বিতীয়ার্ধের তৃতীয় মিনিটে এস্পানিওলের আরেকটি প্রচেষ্টা কর্নারের বিনিময়ে ঠেকান নাভাস। পরের মিনিটে কর্নারে কোস্টা রিকার ডিফেন্ডার অস্কার দুয়ার্তের হেডে বল ক্রসবারের উপরের অংশে লাগলে বেঁচে যায় রিয়াল। ৫৬তম মিনিটে মোরেনোর শটও ঝাঁপিয়ে ঠেকান রিয়াল গোলরক্ষক।

দ্বিতীয়ার্ধে রিয়ালের খেলোয়াড়দের মধ্যে বোঝাপড়ার ঘাটতি আরও স্পষ্ট হয়ে ওঠে। আক্রমণের ধার বাড়াতে ৬৯তম মিনিটে ইসকোকে বসিয়ে করিম বেনজেমাকে নামান কোচ।

তিন দিন আগে দেপোর্তিভো আলাভেসের বিপক্ষে দুর্দান্ত খেলা বেনজেমাও কোচের আস্থার প্রতিদান দিতে পারেননি। বাকি সময়ে কোনো সুযোগই তৈরি করতে পারেনি তারা। উল্টো তাদের রক্ষণে বেশিরভাগ সময় চাপ ধরে রেখে নাভাসের বেশ কবার পরীক্ষা নেয় স্বাগতিকরা।

অনেক সুযোগ নষ্টের ভিড়ে যোগ করা সময়ের শেষ মিনিটে জয়সূচক গোলটি করেন মোরেনো। ডান দিক থেকে স্বদেশি সের্হিও গার্সিয়ার ক্রস ডি-বক্সে পেয়ে জোরালো শটে বল জালে জড়ান স্প্যানিশ এই ফরোয়ার্ড।

লিগে এই নিয়ে পঞ্চম হারের স্বাদ পাওয়া রিয়াল ২৬ ম্যাচে ৫১ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে আছে। লিগে এখন পর্যন্ত অপরাজিত বার্সেলোনার পয়েন্ট ২৫ ম্যাচে ৬৫। ৭ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদ।

চতুর্থ স্থানে থাকা ভালেন্সিয়ার পয়েন্ট ৪৯।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন