বুধবার, ১৫ আগস্ট ২০১৮ ০৩:২২:১৫ পিএম

জাঁকজমক আয়োজনের মাধ্যমে বঙ্গমাতা হলের প্রথম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

নুর হাছান নাঈম | শিক্ষাঙ্গন | বৃহস্পতিবার, ৮ মার্চ ২০১৮ | ০৭:০৩:৪২ পিএম

বর্ণাঢ্য আয়োজনে পালিত হল জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের প্রথম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী।

২০১৭ সালের ৭ই মার্চ প্রাধ্যাক্ষ অধ্যাপক ড.তপন কুমার সাহার হাত ধরে শুরু হয় বঙ্গমাতা ফজিলতুনন্নেছা মুজিব হলের।দেখতে দেখতে হলটি একটি বছর অতিবাহিত করে দ্বিতীয় বর্ষে পদার্পন করে।
সকাল বেলার র‍্যালির মাধ্যমেই অনুষ্ঠানের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়।র‍্যালিটি বঙ্গমাতা হল থেকে শুরু হয়ে ক্যাম্পাসের প্রান্তিক গেট(জয় বাংলা),চৌরঙ্গী, পুরাতন কলা ভবন, পিঠা চত্ত্বর,ট্রান্সপোর্ট এবং ক্যাম্পাসের অন্যান্য স্থান প্রদক্ষিণ করে হলে এসে শেষ হয়।

সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ড.ফারজানা ইসলাম।তিনি শুভেচ্ছা বক্তব্যে বলেন, "হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সহধর্মিণী বেগম ফজিলতুনন্নেছা মুজিব যিনি ছিলেন বঙ্গবন্ধুর " বঙ্গবন্ধু " হয়ে ওঠার পিছনে অনুপ্রেরণা।"

৭ই মার্চের ভাষণে বাঙ্গালীর স্বাধীকার আন্দোলনের যে ডাক দেওয়া হয়েছিল তার পেছনে মূল অনুপ্রেরণা ছিলেন বঙ্গমাতা।তিনি আরও বলেন যে, " আমরা ১৬ই ডিসেম্বর বিজয় পেলেও প্রকৃত পক্ষে স্বাধীনতা পাইনি। আমাদেরকে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার লক্ষ্যে কাজ করতে হবে।আজ বঙ্গবন্ধুর অবদানের জন্যই আজ আমরা শিক্ষা দিক্ষায় এগিয়ে আসতে পেরেছি।"


তিনি শ্রদ্ধা ভরে স্মরণ করেন বঙ্গবন্ধু পরিবারের সকল সদস্যদের।

উক্ত অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন বঙ্গমাতা হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড.তপন কুমার সাহা। তিনি সকলের সহযোগীতায় পড়াশোনা, খেলাধুলা এবং অন্যান্য কার্যক্রমে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলকে ক্যাম্পাসের অন্যতম হল এ পরিণত হওয়ার আশা ব্যক্ত করেন।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন