বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮ ০৮:৩৮:৩২ এএম

নদীর ধারে বস্তা আটকে গিয়েছিল কোদালে, অতঃপর মুখ খুলতেই উঁকি মারল সে...

বিবিধ | রবিবার, ১১ মার্চ ২০১৮ | ০৬:২৮:৩৮ এএম

নদীর তীরে মাটি খোঁড়া হচ্ছিল। মাটির তলা থেকে বেরিয়ে আসছিল বর্জ্য অনেক জিনিসই। কিন্তু একটা বস্তা দেখতেই খটকা লাগে এক দিনমজুরের। বস্তার মুখ খোলেন তিনি। আর তা দেখেই, তিনি তো বটেই মাটি কাটার কাজে নিযুক্ত বাকি শ্রমিকরাও ছিটকে বসে পড়েন ।

নদীর ধারে বস্তা আটকে গিয়েছিল কোদালে, অতঃপর মুখ খুলতেই উঁকি মারল সে নরকঙ্কাল। মাথাভাঙ্গার সুটুঙ্গা নদীর তীরে উদ্ধার হয় নরকঙ্কাল। আর তা ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়।

কিছুদিন ধরেই সুটুঙ্গা নদীর ধারে মাটি কাটার কাজ চলছে। শুক্রবার সকালও কাজে যান শ্রমিকরা। কাজ চলতে থাকে সন্ধ্যা পর্যন্ত। এদিন সন্ধ্যার ঠিক আগেই এক শ্রমিক মাটি কাটতে গিয়ে বস্তা দেখতে পান।

কার্যত, তাঁর কোদালেই বস্তার মুখ আটকে যায়। তাতেই হয় রহস্যভেদ। প্রথমে মনে করা হচ্ছিল কোনও বর্জ্য পদার্থই রয়েছে। কিন্তু বস্তার মুখ খুলতেই নরকঙ্কালটি দেখতে পান তাঁরা।

খবর দেওয়া হয় মাথাভাঙ্গা থানায়। পুলিস গিয়ে নরকঙ্কালটি উদ্ধার করে। এটি কোনও প্রাপ্ত বয়স্ক ব্যক্তিরই নরকঙ্কাল বলে জানা গিয়েছে। স্পষ্টত বোঝাই যাচ্ছে, খুন করে দেহ বস্তাবন্দি করে ফেলে রেখে যাওয়া হয়েছিল এখানে। ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিস। -জিনিউজ

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন