বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮ ০৬:৪১:৩৬ পিএম

চাপে বিজেপি সরকার, কৃষক জমায়েত বাড়ছে, কাল বিধানসভা ঘেরাও

আন্তর্জাতিক | সোমবার, ১২ মার্চ ২০১৮ | ০৩:৩১:১৩ এএম

কাঁধে কাস্তে-হাতুড়ি আঁকা লাল ঝাণ্ডা নিয়ে কাতারে কাতারে কৃষক হেঁটে আসছেন মুম্বাইয়ের দিকে। সংখ্যাটা ইতিমধ্যেই ৩০ হাজার ছাপিয়ে গিয়েছে। চাপে রয়েছে রাজ্য ও দেশটির ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার।

ঋণ মকুব, ফসলের ন্যায্য দাম, লাঙল যার, জমি তার থেকে আদিবাসীদের অরণ্যের জমির উপরে অধিকারের মতো একগুচ্ছ দাবি নিয়ে ৬ মার্চ থেকে পথ হেঁটেছেন ওই কৃষকরা। প্রায় ১৭০-১৮০ দূরত্ব পায়ে হেঁটে এসে সোমবার তারা ঘেরাও করবেন মহারাষ্ট্রের বিধানসভা ভবন।

ত্রিপুরার ২৫ বছরের দুর্গে ধস নামার পরে এ দেশে বামেরা যখন রীতিমতো কোণঠাসা, তখন বিজেপি শাসিত মহারাষ্ট্রেই সিপিএমের কৃষক সভার ডাকে এ হেন আন্দোলন বিজেপির ‘গড়’ মহারাষ্ট্রের দেবেন্দ্র ফডণবীসের সরকারকে চিন্তায় ফেলে দিয়েছে।

সোমবার মুম্বাইতে আজাদ ময়দানের কাছেই কৃষকদের পদযাত্রা আটকে দেওয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে রাজ্য প্রশাসন। কিন্তু যে ভাবে চাষিরা কৃষক সভার ঝান্ডা হাতে নিয়ে রাস্তায় নেমেছেন, তাতে উদ্বিগ্ন বিজেপি নেতৃত্ব।

কৃষক সভার মহারাষ্ট্র রাজ্য কমিটির সাধারণ সম্পাদক অজিত নাওয়ালে বলেছেন, ‘হেঁটে আসা কৃষকদের সংখ্যাটা আগামী কাল ৬০ হাজারও ছাপিয়ে যেতে পারে।’ কৃষক নেতাদের সঙ্গে কথা বলতে মন্ত্রী গিরীশ মহাজনকে দায়িত্ব দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফডণবীশ।

বুলেট-ট্রেন-সুপার হাইওয়ের মতো প্রকল্প করে বিজেপি সরকার চমক দিতে চাইছিল। সেই প্রকল্পের নামেই জমি অধিগ্রহণের বিরোধিতায় চাষিরা পথে নেমেছেন। মহারাষ্ট্রে দেবেন্দ্র ফডণবীসের সরকার আগেই ৩৬ হাজার কোটি টাকার ঋণ মকুবের কথা ঘোষণা করে দিয়েছিল।

তবে, কৃষক সভার যুগ্ম সম্পাদক বিজু কৃষ্ণনের কথায়, ‘সরকার এমন সব শর্ত রেখেছে যে ঋণের খুব সামান্য টাকাই মকুব হবে। প্রধানমন্ত্রী ঘটা করে ফসল বিমা যোজনা ঘোষণা করেছেন। কিন্তু প্রাকৃতিক দুর্যোগে ফসল নষ্ট হলেও ক্ষতিপূরণ মিলছে না। বুলেট ট্রেন-সুপার হাইওয়ের নামে আদিবাসীদের জমি কেড়ে নেওয়া হচ্ছে।’

কৃষক সভার সাধারণ সম্পাদক হান্নান মোল্লার বক্তব্য, তাদের উদ্যোগে রাজস্থান ও মধ্যপ্রদেশে আন্দোলনে সাফল্য মিলেছে। এ বার মহারাষ্ট্রে আন্দোলনকে সমর্থন করতে বাধ্য হয়েছে বিরোধী দলগুলি। কৃষক সভার এই বিক্ষোভ সমাবেশকে সমর্থন করেছে মহারাষ্ট্র প্রদেশ কংগ্রেস ও শিবসেনা।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন