বৃহস্পতিবার, ২৬ এপ্রিল ২০১৮ ০১:১৬:১০ পিএম

দুই দিনে ফেসবুকের ক্ষতি পাঁচ হাজার কোটি টাকা

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি | বৃহস্পতিবার, ২২ মার্চ ২০১৮ | ০৩:৩১:১২ পিএম

সম্প্রতি পাঁচ কোটি গ্রাহকের তথ্য পাচারের গুরুতর অভিযোগ উঠেছে ফেসবুকের বিরুদ্ধে। এরই মধ্যে ভুল স্বীকার করে ক্ষমা চেয়েছেন ফেসবুক প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গ।

তবে ঘটনার সমাপ্তি যে এখানেই ঘটছে না সেটা নিশ্চিত। এরই মধ্যে ফেসবুকের শেয়ার মূল্য কমে গেছে ১০ শতাংশ। এতে গত দুই দিনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটির লোকসানের পরিমাণ প্রায় পাঁচ হাজার কোটি টাকা। খবর রিকোডের।

নির্বাচন বিষয়ক ব্রিটিশ গবেষণা সংস্থা ‘ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা’ পাঁচ কোটি ফেসবুক গ্রাহকের তথ্য হাতিয়ে নিয়েছে এমন অভিযোগ ওঠার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটিকে বর্জনের ঝড় উঠেছে। তাতে ব্রিটিশ ও আমেরিকান রাজনীতিক থেকে শুরু করে প্রযুক্তি খাতের শীর্ষ কর্তাব্যক্তিরাও রয়েছেন।

এই তালিকায় রয়েছেন হোয়াটসঅ্যাপের সহপ্রতিষ্ঠাতা ব্রায়ান অ্যাকটনও। মঙ্গলবার তিনি এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, হ্যাশট্যাগ ডিলিট ফেসবুক।

ফ্যাক্টসেটের তথ্য অনুযায়ী, গত শুক্রবার থেকে ফেসবুকের বাজার দর কমেছে ৫০ বিলিয়ন ডলার। মঙ্গলবার শেয়ার মার্কেট বন্ধ হবার আগে ফেসবুকের বাজার দর ছিল ১৬৮ ডলার। যা গত শুক্রবারের তুলনায় ১০ শতাংশ কম।

গত কয়েক বছরের মধ্যে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারের দাম এতটা কমে যাওয়া নজিরবিহীন। শুধু ফেসবুক নয়, ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অন্যান্য প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানও। ফিন্যান্সিয়াল টাইমসের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, নাসদাকের শেয়ারের দাম কমেছে ১ দশমিক ৮ শতাংশ হারে। অ্যালফাবেট বা গুগলের শেয়ারের দাম কমেছে ৩ দশমিক ৫ শতাংশ। আমাজনের দাম কমেছে ২ দশমিক ৩ শতাংশ। অ্যাপলের প্রতিটি শেয়ার লেনদেন হয়েছে আগের চেয়ে ২ শতাংশ কম দামে। অন্যদিকে, মাইক্রোসফটের শেয়ারের দাম ২ দশমিক ২ শতাংশ কমে গেছে।

অভিযোগ উঠেছে, কেমব্রিজ অ্যানালিটিকা নামের একটি প্রতিষ্ঠানের অ্যাপ ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছিল ফেসবুক। ওই অ্যাপের মাধ্যমে কোটি কোটি ফেসবুক ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য সংগ্রহ করে কেমব্রিজ অ্যানালিটিকা। সেই তথ্য পরে ব্যবহার করা হয় যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারের কাজে। এ কাজের সঙ্গে জড়িত এক অধ্যাপক সম্প্রতি মুখ খোলায় প্রকাশ্যে এসেছে সবকিছু। এখন পুরো বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত (ইইউ) বিভিন্ন দেশের রাজনীতিবিদেরা।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন