বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮ ১২:৪২:০৪ পিএম

মিয়ানমারকে রোহিঙ্গাদের আরেকটি তালিকা দেবে বাংলাদেশ

জাতীয় | বৃহস্পতিবার, ২৯ মার্চ ২০১৮ | ০১:০৭:২৭ এএম

রাখাইনে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের জন্য মিয়ানমারকে আরেকটি তালিকা দিতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। প্রত্যাবাসনের জন্য দ্বিতীয় ওই তালিকায় ৫ থেকে ১০ হাজার রোহিঙ্গার নাম থাকবে।

বুধবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের জন্য গঠিত দ্বিতীয় যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের প্রস্তুতিমূলক সভায় এ বিষয়টি ঠিক হয়েছে। পররাষ্ট্রসচিব মো. শহীদুল হকের সভাপতিত্বে তার দপ্তরে ওই বৈঠকটি হয়।

বৈঠকের বিষয়ে জানতে চাইলে শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোহাম্মদ আবুল কালাম সন্ধ্যায় বলেন, ‘যাচাইয়ের পর মিয়ানমারের কাছ থেকে প্রথম তালিকায় যে নামগুলো পেয়েছি, সেগুলো নিয়ে কাজ করা হবে। এর পাশাপাশি মিয়ানমারের কাছে দ্বিতীয় তালিকা তৈরির কাজ হচ্ছে।

প্রথম তালিকার সব নাম চূড়ান্ত যাচাইয়ের আগে আরেকটি তালিকা দেওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে আবুল কালাম বলেন, একটি তালিকা দেওয়ার পাশাপাশি আরেকটি তালিকা করে তা দেওয়া হবে। আর এটি চলমান একটি প্রক্রিয়া। তিনি জানান, পরের তালিকায় ৫ থেকে ১০ হাজার রোহিঙ্গার নাম থাকবে।

মিয়ানমার যাচাই শেষে রোহিঙ্গাদের নাম পরিবারভিত্তিক করেছে কি না, জানতে চাইলে প্রত্যাবাসন কমিশনার বলেন, ‘আমরা এটি খতিয়ে দেখব।’

প্রসঙ্গত, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি দুই দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে বাংলাদেশ ১ হাজার ৬৭৩টি পরিবারের ৮ হাজার ৩২ জন রোহিঙ্গার প্রথম তালিকা মিয়ানমারকে দিয়েছিল। এ পর্যন্ত মিয়ানমার ৫৭০ রোহিঙ্গার নাম যাচাই করে বাংলাদেশকে ফিরতি তালিকা দিয়েছে।

বৈঠকে উপস্থিত এক জ্যেষ্ঠ কূটনীতিক এই প্রতিবেদককে জানান, প্রত্যাবাসনের জন্য গঠিত দুই দেশের পররাষ্ট্রসচিবদের নেতৃত্বে গঠিত জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপের দ্বিতীয় বৈঠক আগামী মাসের শেষ সপ্তাহে ঢাকায় অনুষ্ঠিত হবে। এ ছাড়া রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের জন্য জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থার সঙ্গে মূল চুক্তিটি সইয়ের জন্য প্রায় চূড়ান্ত হয়ে গেছে। আগামী সপ্তাহে এটি সই হতে পারে।

গত বছরের ২৫ আগস্ট রাখাইনে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর হামলার কারণে প্রায় সাত লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসে। এর আগে থেকে প্রায় তিন লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে অবস্থান করছিল। প্রথম আলো

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন