শুক্রবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৮ ০২:৫০:৩৭ পিএম

ফাটা প্যান্ট দিয়ে বাতাস ঢুকে যুবকের মৃত্যু!

বিবিধ | শনিবার, ৭ এপ্রিল ২০১৮ | ১০:০৮:৫৭ পিএম

মজা করতে গিয়ে অনেক সময়ই ঘটে যায় অঘটন। হাসি-ঠাট্টা মুহূর্তে পরিণত হয় চোখের পানিতে। কিন্তু খেলাচ্ছলে মজা করতে গিয়ে কারও প্রাণ যাওয়ার ঘটনা কমই ঘটে। তেমনই এক ঘটনা ঘটেছে দিল্লিতে। প্যান্টের ফাটা স্থান দিয়ে পাইপ দিয়ে মলদ্বারে বাতাস ঢোকানোয় মৃত্যু হলো রবিন্দর নামের এক যুবকের। খবর জিনিউজের।

দিল্লি পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, দিল্লির নানগ্লোই এলাকার স্বর্ণ পার্কে একটি প্লাইউড কারখানার কর্মী ছিলেন তিনি রবিন্দর। বুধবার সকালে একটি ফাটা প্যান্ট পরে কাজে গিয়েছিলেন রবিন্দর। নিচু হয়ে কোনও জিনিস মাটি থেকে তোলার সময় স্পষ্ট হয় সেই ফাটা অংশ। তখনই পাশে থাকা একটি হাইপ্রেসার পাইপ থেকে জোরে রবিন্দরের মলদ্বার লক্ষ্য করে হাওয়া ছোড়েন পণ্ডিত নামে এক সহকর্মী।

ঘটনার পর থেকেই পেটে ব্যথা অনুভব করতে থাকেন রবিন্দর। পরে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে চিকিৎসকদের আসল কথা জানাননি তিনি। পরে চিকিৎসকরা অস্ত্রোপচারের কথা বললে ভেঙে পড়েন রবিন্দর। আসল কথা চিকিৎসকদের জানান তিনি। তবে শেষ রক্ষা হয়নি। বৃহস্পতিবার মৃত্যু হয় ওই যুবকের।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ফাটা প্যান্ট দিয়ে এয়ার জেটের হাওয়া মলদ্বার দিয়ে ক্ষুদ্রান্ত্রে ঢুকে পড়ে। এরপরই শুরু হয় পেটে ব্যথা। প্রথমে তা না জানানোয় নির্দিষ্ট চিকিৎসা শুরু করতে দেরি হয়ে যায়। যার জেরে মৃত্যু হয়েছে ওই যুবকের।

ঘটনায় পণ্ডিত নামে ওই যুবকের বিরুদ্ধে অনিচ্ছাকৃত খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে পুলিশ। দিল্লির ডেপুটি পুলিশ কমিশনার এমএন তিওয়ারি জানিয়েছেন, নিছক মজার ছলেই এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। রবিন্দরের কোনও ক্ষতি করার অভিপ্রায় পণ্ডিতের ছিল না। দিল্লিতেই পরিবার নিয়ে থাকতেন রবিন্দর। তার বেঘোরে মৃত্যুতে কূলকিনারা পাচ্ছেন না তারা।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন