রবিবার, ২২ জুলাই ২০১৮ ১০:৩৮:৪৬ এএম

কথোপকথনের ৪৭ সেকেন্ড গ্যাপের কারণ অনুসন্ধান করবে তদন্ত টিম

জাতীয় | বৃহস্পতিবার, ১২ এপ্রিল ২০১৮ | ১০:২০:১২ পিএম

নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের এয়ারক্রাফটির সাথে টাওয়ারের কথোপকথন নিয়ে শুরু থেকেই নানা প্রশ্ন। প্রয়াত পাইলটের সাথে কন্ট্রোল টাওয়ারের কি কি কথা হয়েছে, কে কার কাছে কি সহযোগীতা চেয়েছিল-মাসব্যাপী এই নিয়ে ছিল চুলচেরা বিশ্লেষণ আর তর্ক বিতর্ক। সম্প্রতি এতে যোগ হয়েছে নতুন মাত্রা।

সর্বশেষ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ তদন্ত টিমের প্রধান সালাউদ্দিন এম রহমতউল্লাহ সংবাদ সম্মেলন করে বলেছেন, ত্রিভুবন বিমান বন্দরে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের কথোপকথনে ৪৭ সেকেন্ডের গ্যাপের কারণ অনুসন্ধান করবে তদন্ত টিম।

বিকেলে বেসমরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ-বেবিচক প্রধান কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তদন্ত টিমের প্রধান এসব কথা বলেন।

সালাউদ্দিন এম রহমতউল্লাহ বলেন, অবতরণের আগে নেপালে দুর্ঘটনা কবলিত ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজটির অবস্থান রানওয়ে বরাবর ছিল না। পাইলটের সাথে বিমানবন্দরের ট্রাফিক কন্ট্রোল টাওয়ারের কথোপকথনে ৪৭ সেকেন্ডের গ্যাপ ছিল। কি কারণে এমনটি হয়েছে-আমরা এখনো তা নিশ্চিত নই। তবে যা ঘটেছে তার বাস্তব চিত্র আমরা পাবো। একটু সময় লাগবে।’

বিমানটিতে ৬৫ জন যাত্রী ছিলেন বলে জানিয়েছেন কর্তৃপক্ষ। বিধ্বস্ত বিমানে দুই শিশুসহ ৩৩ বাংলাদেশি ছিলেন বলেও জানানো হয়।

গত ১২ মার্চ নেপালের স্থানীয় সময় দুপুর ২টা ২০ মিনিটে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়।

উল্লেখ্য, ফ্লাইটে ৬৫ জন বয়স্ক, দুই শিশু এবং পাইলট ও ক্রু চারজন ছিলেন। তাদের মধ্যে ৩৩ জন বাংলাদেশি, একজন মালদ্বীপ, একজন চাইনিজ এবং নেপালি ৩২ যাত্রী ছিলেন। এর মধ্যে ৫১ জনের প্রাণহানি ঘটে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন