মঙ্গলবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ০৯:৪৮:১৭ পিএম

স্ত্রীর আবেদনে দাফনের ৪৪ দিন স্বামীর পর মরদেহ উত্তোলন

রান্নাবান্না | নারায়ণগঞ্জ | সোমবার, ২৩ এপ্রিল ২০১৮ | ০৯:৫৩:২১ পিএম

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় ঘাস কাটার অপরাধে নেকবর আলী (৪০) নামে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় দাফনের ৪৪ দিন পর কবর থেকে মরদেহ উত্তোলন করেছে পুলিশ। সোমবার বিকেলে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জাহাঙ্গীর আলমের উপস্থিতিতে পুলিশ স্থানীয় কবরস্থান থেকে মরদেহটি উত্তোলন করে।

নিহত নেকবর আলী ফতুল্লার বক্তাবলী ইউনিয়নের মধ্যনগর গ্রামের সৈয়াল বাড়ির মৃত জালাল উদ্দিনের ছেলে।

ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) দিদারুল আলম জানান, ৮ মার্চ দুপুরে গ্রামের আশ্রাব আলীর খেতে গরুর জন্য ঘাস কাটতে যায় নেকবর আলী। এতে আশ্রাব আলী ক্ষিপ্ত হয়ে নেকবর আলীকে মারধর করেন। এ সময় নেকবর আলী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে স্থানীয়রা বাড়িতে নিয়ে যান। পরের দিন নেকবর আলী আরও অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে প্রথমে শহরের ৩০০ শয্যাবিশিষ্ট খানপুর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক নেকবর আলীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। পরে ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১০ মার্চ নেকবর মারা যান।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় নেকবর আলীর স্ত্রী খোরশেদা বেগম মরদেহ উত্তোলন করে ময়নাতদন্তের জন্য আদালতে আবেদন করেন। মরদেহ উত্তোলনের সময় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। মরদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য শহরের ভিক্টোরিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন