বুধবার, ২৩ মে ২০১৮ ০৯:০৯:৩২ পিএম

এত নির্যাতনের পরও এত ভালোবাসা

জেলার খবর | খাগড়াছড়ি | বৃহস্পতিবার, ৩ মে ২০১৮ | ০২:২০:০৪ পিএম

খাগড়াছড়িতে স্ত্রী নির্যাতনকারী পাষণ্ড স্বামী অবশেষে স্ত্রীর জিম্মাতেই মুক্ত হয়েছে। আটকের পর বুধবার রাতে খাগড়াছড়ি পৌরসভার কাউন্সিলর মো. মাসুদসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে রোকেয়া তার স্বামীকে থানা থেকে ছাড়িয়ে আনেন।

গৃহবধূ রোকেয়া বেগমকে আর নির্যাতন না করার শর্তে স্বামী অটোরিকশা চালক মো. মাসুদ ও তার বাবা মো. ফয়েজ আহমেদ যৌথভাবে মুচলেকা দিয়েছেন। এছাড়া ফের নির্যাতনের ঘটনা ঘটলে পুলিশ তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেবে এমন শর্তও যুক্ত হয় মুচলেকায়। পরে স্ত্রীর জিম্মায় তাকে থানা থেকে যেতে দেয়া হয়।

খাগড়াছড়ি সদর থানা পুলিশের ওসি মো. সাহাদাত হোসেন টিটো বলেন, নির্যাতিতা গৃহবধূর আকুতিতে পাষণ্ড স্বামীকে ছেড়ে দিতে হয়েছে। এত নির্যাতনের পরও স্বামীর প্রতি রোকেয়ার ভালোবাসা দেখে আমরা অবাক।

প্রসঙ্গত, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বুধবার সকালে খাগড়াছড়ি শহরের মেহেদীবাগ এলাকার বাড়ির উঠানে ফেলে গৃহবধূ রোকেয়া বেগমকে পাশবিক নির্যাতন করে পাষণ্ড স্বামী অটোরিকশা চালক মো. মাসুদ। এক যুবক এ নির্যাতনের ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়। নির্যাতনের সময় রোকেয়া আক্তারের কোলে থাকা এক বছর বয়সী শিশুকে নিয়ে মাটিতে গড়াগড়ি ও নির্যাতনের দৃশ্য দেখে পাষণ্ড মাসুদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন সবাই। কিন্তু স্বামীর প্রতি স্ত্রীর ভালবাসায় পাষণ্ড স্বামীকে শাস্তির বদলে ছেড়ে দিতে হয়েছে পুলিশকে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন