বৃহস্পতিবার, ২১ জুন ২০১৮ ১০:২৩:১১ এএম

ঘড়ির পেছনেই রিয়ালের খরচ ৭ কোটি ৩৬ লাখ!

খেলাধুলা | শুক্রবার, ৪ মে ২০১৮ | ০৫:২৭:০৮ পিএম

টানা তৃতীয়বারের মতো উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে উঠেছে রিয়াল মাদ্রিদ। ২৬ মে ইউক্রেনের কিয়েভে অনুষ্ঠিত হবে ফাইনাল। যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব লিভারপুল। লিভারপুলকে হারাতে পারলে টানা তৃতীয় শিরোপা জিতে নিবে তারা। যা হবে রিয়াল মাদ্রিদের ১৩তম চ্যাম্পিয়নস লিগ শিরোপা।
এমন সময়ে তারা পেল দ্বাদশ শিরোপা জয়ের উপহার! ২০১৬-১৭ মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে ওঠার পর রিয়াল মাদ্রিদ কর্তৃপক্ষ বলেছিল চ্যাম্পিয়ন হতে পারলে ‘রোলেক্স ব্র্যান্ডের’ কাছ থেকে ৩০টি ঘড়ি কিনবে তারা। জুভেন্টাসকে হারিয়ে শিরোপা জিতেছিল লস ব্লাঙ্কোসরা। কিন্তু সেই ঘড়ি কেনা হয়নি গেল ১১ মাসেও।

অবশেষে প্রতিশ্রুত সেই ঘড়ি কিনেছে রিয়াল মাদ্রিদ। রোলেক্স এর কাছ থেকে ৩০টি ঘড়ি কিনতে তাদের গুনতে হয়েছে ৭ লাখ ২০ হাজার ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ দাঁড়ায় ৭ কোটি ৩৬ লাখ ৪২ হাজার ৩৯৮ টাকা। ‘রোলেক্স সাবমেরিনার্স ডেট ওয়াচ’ মডেলের ঘড়িটি সবার জন্য পছন্দ করেছিলেন রিয়ালের অধিনায়ক সার্জিও রামোস। অবশ্য টাকাটা খরচ করা হয়েছে গেল বছর চ্যাম্পিয়নস লিগ ও লা লিগার শিরোপা জিতে যে ৭০ মিলিয়ন ইউরো প্রাইজমানি পেয়েছিল রিয়াল, সেখান থেকে।

এবারও তারা চ্যাম্পিয়ন হলে ৬০ মিলিয়ন ইউরো পাবে। ১০ মিলিয়ন কম পাওয়ার কারণ, লা লিগার শিরোপা জিততে পারেনি রিয়াল। ৬০ মিলিয়ন প্রাইজমানি থেকে বোনাস হিসেবে প্রত্যেক খেলোয়াড়কে দেওয়া হবে ৬ লাখ ইউরো করে। তার পাশাপাশি আরো একটি করে উপহার পাবেন রোনালদো-রামোসরা।


খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন