শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ০১:১১:১৫ পিএম

তিন পার্বত্য জেলায় ৪৮ ঘণ্টা হরতালের ডাক

জেলার খবর | রাঙ্গামাটি | শনিবার, ৫ মে ২০১৮ | ০৭:৪২:১৭ পিএম

রাঙ্গামাটিতে সশস্ত্র হামলায় নিহত মাইক্রোবাস চালক সজীব খুনিদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে তিন পার্বত্য জেলায় ৪৮ ঘণ্টার হরতালের ডাক দিয়েছে পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদ ও পার্বত্য নাগরিক পরিষদ। শনিবার দুপুরে পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত ফরাজি সাকিব এ কর্মসূচি ঘোষণা দেন। এছাড়া একই দাবিতে রোববার তিন পার্বত্য জেলায় কালো পতাকা মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ কর্মসূচি পালন করবে সংগঠন দুটি।

পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের রাঙ্গামাটি জেলা কমিটির সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম জানিয়েছেন, খাগড়াছড়ি উপজেলার মহালছড়ি থেকে মাটিরাঙ্গার বাসিন্দা তিন বাঙালি যুবককে জীবিত উদ্ধারসহ ৫ মে রাঙ্গামাটিতে সশস্ত্র হামলায় নিহত মাইক্রোবাস চালক সজীব খুনিদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবি এবং জনসংহতি সমিতি, ইউপিডিএফসহ পাহাড়ের সশস্ত্র সংগঠনগুলোর রাজনীতি নিষিদ্ধ করার দাবিতে আগামী সোমবার ও মঙ্গলবার ৪৮ ঘণ্টার হরতালে ডাক দিয়েছে তারা।


পার্বত্য বাঙালি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত ফরাজি সাকিব জানিয়েছেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে আঞ্চলিক দল জনসংহতি সমিতি, ইউপিডিএফসহ আঞ্চলিক দলগুলোর সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের কাছে পাহাড়ের মানুষের জীবন আজ জিম্মি। তাদের অব্যাহত সন্ত্রাস, চাঁদাবাজি ও হত্যার কারণে পাহাড়ের মানুষ শান্তি হানিয়ে গেছে। তাই এদের সন্ত্রাসী রাজনীতি নিষিদ্ধ করার দাবিতে আমরা কর্মসূচি পালন করছি। এ হরতাল পার্বত্য তিন জেলা রাঙ্গামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবানে পালিত হবে।

প্রসঙ্গত, গত ১৬ এপ্রিল মহালছড়ি বাজারে কাঠ কিনতে গিয়ে মাটিরাঙ্গার উপজেলার নতুনপাড়া এলাকার মো. খোরশেদ আলমের ছেলে মো. সালাহ উদ্দিন (২৮), মৃত আবুল কাশেমের ছেলে মহরম আলী (২৭) ও আদর্শ গ্রামের বাসিন্দা ট্রাকচালক বাহার মিয়া (২৭) নিখোঁজ হন। সে থেকে গত ২০ দিনেও তাদের কোনো সন্ধান মেলেনি। এর মধ্যে গত ৪ মে রাঙ্গামাটি-খাগড়াছড়ি সড়কের কেরেঙ্গাছড়ি এলাকায় সন্ত্রাসী হামলায় নিহত নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান শক্তিমান চাকমার দাহক্রিয়ায় যোগ দিতে যাওয়ার পথে সন্ত্রাসী হামলায় নিহত হন মাইক্রোবাস চালক সজীবসহ ৫ জন। সজীব নিহত হওয়ার প্রতিবাদে কর্মসূচি ঘোষণা করলো বাঙালী সংগঠন দুটি।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন