বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮ ০৯:১৩:৩৩ পিএম

চাকরি দেওয়ার নামে টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

আইন আদালত | রবিবার, ১৩ মে ২০১৮ | ০৯:২৭:৫৩ পিএম

সংসদ সচিবালয়ের অফিস সহকারী আব্দুল মালেক হাওলাদার নিজেকে একজন কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে সরকারি চাকরি দেওয়ার নাম করে ২ লাখ টাকা আত্মসাৎ করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে আব্দুল মালেকের বিরুদ্ধে পল্লবী থানায় একটি জিডি করা হয়েছে।

ভুক্তভোগী তার নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ‘আমার এবং আব্দুল মালেকের বাসা কালশী রোডে সাংবাদিক আবাসিক এলাকায়। এই সুবাদে তার সঙ্গে পরিচয় হয়। তার গ্রামের বাড়ি বরিশাল জেলার বিমানবন্দর থানার কাশিপুর ইউনিয়নের কলসগ্রামে। আমি সরকারি চাকরির চেষ্টা করছি শুনে তিনি আমাকে বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশনে ‘অফিস সহকারী কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক’ পদে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার আশ্বাস দেন। বিনিময়ে তিনি ৭ লাখ টাকা দাবি করেন।

চাকরি দিতে ব্যর্থ হলে সর্বোচ্চ দুই মাসের মধ্যে আমার সকল টাকা ফেরত দেবেন বলে অঙ্গীকার করেন। এমনকি টাকা ফেরত দিতে বাধ্য থাকবেন মর্মে ৫ এপ্রিল ২০১৭ তারিখে ৩০০ টাকার নন-জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে লিখিত দেন। আমি সরকারি চাকরি পাওয়ার আশায় তাকে নগদ ২ লাখ টাকা দেই। কিন্ত প্রায় এক বছর পার হওয়ার পরও তিনি চাকরি পাইয়ে দেননি বরং টাকা ফেরত না দিয়ে আমাকে গুম-খুন করার হুমকি দিচ্ছেন। এ ব্যাপারে তার স্ত্রী হালিমা বেগমকে অবহিত করে টাকা ফেরত দিতে অনুরোধ করা হলে তিনিও আমাকে হুমকি দেন।’

ভুক্তভোগী আরো বলেন, ‘আব্দুল মালেককে টাকা দিয়ে আজ আমি বিপদগ্রস্ত। আমার পৈতৃক সম্পত্তি বিক্রি করে তাকে টাকা দিয়েছি। কিন্ত আমার চাকরিও হলো না আর টাকাও ফেরত পাচ্ছি না। আব্দুল মালেক হাওলাদার নিজেকে সংসদ সচিবালয়ে কর্মকর্তা পদে চাকরিজীবী বলে আমার কাছে পরিচয় দিয়েছেন। কিন্ত পরে খোঁজ-খবর নিয়ে জানতে পারি, তিনি অফিস সহকারী (পিয়ন) পদে চাকরি করেন ।

টাকা আত্মসাতের অভিযোগে আব্দুল মালেককে বিচারের আওতায় এনে কঠিন শাস্তির দাবি করেন এই ভুক্তভোগী।

এ ব্যাপারে আব্দুল মালেকের মোবাইল ফোনে কল দিয়ে তার বক্তব্য জানতে চাইলে তিনি টাকা নেওয়ার কথা স্বীকার করেন।

তদন্তকারী কর্মকর্তা পল্লবী থানার এসআই শহীদুল ইসলাম এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘ভুক্তভোগীর অভিযোগ গ্রহণ করা হয়েছে।তার জিডি নং-৯১৭/১২-০৫-২০১৮। যত দ্রুত সম্ভব তদন্ত করে আব্দুল মালেক হাওলাদারের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন