শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৭:৩৯:৩৫ এএম

সরকারি বিদ্যালয়টি যেন গোয়ালঘর!

জেলার খবর | হবিগঞ্জ | রবিবার, ২০ মে ২০১৮ | ০৬:৪৬:০১ পিএম

দেখে বোঝার উপায় নেই যে এটি সরকারি বিদ্যালয় নাকি গোয়ালঘর। ঠিক এমনই ভাবনা আসে হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার শাহজাহানপুর ইউনিয়নের বনগাঁও গ্রামের এক্তারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গেলে।
স্কুল কতৃপক্ষের দায়িত্ব অবহেলার কারণে প্রতিদিন বিদ্যালয়ের বারান্দায় গরু-ছাগল বেঁধে বিদ্যালয়ের সৌন্দর্য বিনষ্ট করছেন স্থানীয়রা।
গ্রামবাসীদের অভিযোগ, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করলে এ অবস্থার সৃষ্টি হত না। দায়িত্ব পালনে প্রধান শিক্ষক উদাসীন।
এক্তারপুর গ্রামের বাসিন্দা মনতলা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক কাজী মোশতাক আহমেদ জানান, কতিপয় প্রভাবশালী ব্যক্তি দীর্ঘদিন ধরে বিদ্যালয়ের বারান্দায় গরু-ছাগল রেখে বিদ্যালয়ের পরিবেশ নষ্ট করছে। স্থানীয় কিছু লোক গৃহস্থালির বিভিন্ন কাজ বিদ্যালয়ে করে থাকেন। এতে করে বিদ্যালয়ের দরজা, জানালাসহ সরকারী মূল্যবান সম্পদ নষ্ট হচ্ছে। বিদ্যালয়টিতে কোন দপ্তরি বা নৈশ প্রহরী না থাকায় রাতের বেলাও এখানে আড্ডা বসে।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম জানান, মাঝে মধ্যে গ্রামের লোকজন বিদ্যালয়ে গরু-ছাগল বেঁধে রাখে। তাদেরকে নিষেধ করা হয়েছে। এরপরও তারা এ কাজ করে যাচ্ছে।
স্থানীয় ইউপি সদস্য রফিক মিয়া জানান, বিদ্যালয় যাতে কোন লোক গরু-ছাগল রেখে স্বাভাবিক পরিবেশ ও বিদ্যালয়ের সৌন্দর্য নষ্ট না করতে পারে এ ব্যাপারে গ্রামবাসীকে সচেতন করা হবে।
উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. ছিদ্দিকুর রহমান বলেন, বিষয়টি গুরুত্বসহকারে দেখা হবে।
মাধবপুর উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মো. মোকলেছুর রহমান জানান, এ বিষয়টি আমার জানা ছিল না। বিদ্যালয়ের সৌন্দর্য রক্ষা ও শিক্ষার স্বাভাবিক পরিবেশ নিশ্চিত করতে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন