বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৫:২০:১৩ এএম

স্ত্রীর মামলায় আইনজীবী কারাগারে

আইন আদালত | বুধবার, ২৩ মে ২০১৮ | ০৭:৫০:১৫ পিএম

স্ত্রীর করা যৌতুকের মামলায় সুপ্রিম কোর্টের এক আইনজীবীকে কারাগারে পাঠিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল।

বুধবার ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু নাছের মো. জাহাঙ্গীর আলম এ আদেশ দেন।

কারাগারে পাঠানো ওই আইনজীবীর নাম মো. সাজ্জাদ হোসেন (৩৪)। তিনি ঢাকা আইনজীবী সমিতির সদস্য। মামলার বাদী মোসা. ইসমত আরাও ঢাকা আইনজীবী সমিতির সদস্য।

যৌতুক দাবিতে নির্যাতনের অভিযোগে ২০১৭ সালের ২২ অক্টোবর রাজধানীর সূত্রাপুর থানায় স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা করেন ইসমত আরা। মামলার পর ওই বছর ৩১ অক্টোবর আইনজীবী সাজ্জাদ হোসেনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ওই দিনই তার জামিনের আবেদন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠায় সিএমএম আদালত। ১৩ দিন কারাবাসের পর ওই বছর ১৩ নভেম্বর জামিন পান ওই আইনজীবী। মামলাটি তদন্তের পর চলতি বছর ৩১ জানুয়ারি আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন সূত্রাপুর থানার এসআই গোলাম হোসেন খান। বুধবার ওই আসামি ট্রাইব্যুনালে আত্মসমর্পণ করে জামিন স্থায়ী করার আবেদন করলে বিচারক তা নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

মামলায় বাদী জামিন আবেদনের বিরোধিতা করে শুনানিতে বলেন, ওই আসামি আগের বিয়ের কথা গোপন করে তাকে বিয়ে করেছেন। জামিন পাওয়ার পর মামলা তুলে নেওয়ার হুমকি দিচ্ছেন।

মামলায় বলা হয়, ২০১৬ সালের ১৯ আগস্ট বাদী ও আসামির মধ্যে বিয়ে হয়। বিয়ের সময় সাজ্জাদ হোসেনকে ৩ লাখ টাকা যৌতুক দেওয়া হয়। বিয়ের কিছু দিন পর আরো ২৬ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করেন আসামি। তা দিতে অস্বীকার করায় আসামি বাদীকে মারধর করেন।

আসামি সাজ্জাদ হোসেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ থানার কালুপুর গ্রামের শফিকুল ইসলামের ছেলে। অন্যদিকে বাদী ইসমত আরা নওগাঁ জেলার পত্নীতলা থানার বুজরত মহাম্মাদপুর গ্রামের একরামুল হকের মেয়ে।


খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন