বুধবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৮ ১২:১৩:১৮ এএম

মেসওয়াকের গুরুত্ব ও পদ্ধতি

ধর্ম | বৃহস্পতিবার, ২৪ মে ২০১৮ | ০৫:৩১:১৯ পিএম

মিসওয়াক হলো গাছের ডাল বা শিকড়। যা দিয়ে দাঁত মাজা ও পরিষ্কার করা হয়। দাঁত মাজাকেও মিসওয়াক বলা হয়। মিসওয়াক মুখের পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার মাধ্যম, আল্লাহর সন্তুষ্টির উপায়। (বুখারি, নাসাঈ, মিশকাত) অন্য হাদিসে এসেছে, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, এমনটি কখনো হয়নি যে, জিব্রাইল আলাইহিস সালাম আমার নিকট এসেছেন আর আমাকে মিসওয়াকের আদেশ দেননি। এতে আমার আশঙ্কা হচ্ছিল যে, মিসওয়াকের কারণে আমার মুখের অগ্রভাগ ছিলে না ফেলি। (মুসনাদে আহমদ, মিশকাত)

মিসওয়াক করা রাসূল (সা.)-এর সুন্নাত। মানুষের প্রতিটি কাজে রয়েছে সুন্নাতে নববির দিক নির্দেশনা।

মিসওয়াক করার পদ্ধতি, মুখের ডানদিক থেকে শুরু করে দাঁতের প্রস্থের দিক থেকে মিসওয়াক করা। দৈঘ্যের দিক থেকে নয়। ডান হাতের কনিষ্ঠাঙ্গুলী মিসওয়াকের নিচে আর মধ্যমা ও তর্জনী মিসওয়াকের ওপর এবং বৃদ্ধাঙ্গুলী দ্বারা এর মাথার নিচ ভালভাবে ধরা। এ নিয়মটি হজরত ইবনে মাসউদ রাদিয়াল্লাহু আনহু থেকে বর্ণিত রয়েছে।

মিসওয়াক কখন করবেনঃ
ওজুর পূর্বে/ ওজুতে কুলি করার পূর্বে।
নামাজের পূর্বে।
ঘুম থেকে জাগ্রত হওয়ার পর।
কোনো মজলিসে যাওয়ার পূর্বে।
কুরআন ও হাদিস তেলাওয়াতের পূর্বে।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন