বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৯:১০:৪৯ পিএম

হরিয়ানায় মসজিদে হামলা, আতঙ্কে মুসলিমরা

আন্তর্জাতিক | রবিবার, ৩ জুন ২০১৮ | ০২:১৬:১৮ এএম

ভারতে বিজেপিশাসিত হরিয়ানার কারনালের একটি মসজিদে হামলা চালিয়ে মুসল্লিদের মারধর করেছে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা। শুক্রবার গণমাধ্যমে প্রকাশ, বুধবার রাতে নেওয়াল গ্রামের মসজিদটিতে এক ডজনেরও বেশি হামলাকারী ঢুকে ভাঙচুর করে এবং মুসল্লিদের মারধর, গালিগালাজ ও হত্যার হুমকি দেয়।

লাউডস্পিকারে আযান দেয়াকে কেন্দ্র করে মূল বিবাদের সূত্রপাত বলে মনে করা হচ্ছে। মুসলিমরা বলছেন, ওই ঘটনার সময় লাউডস্পিকার বন্ধ ছিল। মাত্র কিছু সময়ের জন্য আযান হয় তাও কম শব্দে দেয়া হয়। তাদের দাবি, গ্রামেরই কিছু মানুষজন ওই ঘটনার জন্য দায়ী। মসজিদটিতে দীর্ঘদিন ধরে মাইকে আযান দিয়ে নামাজ পড়া হলেও এর আগে কখনো এ ধরনের ঘটনা ঘটেনি।

ফলে সাম্পপ্রদায়িক সমপ্রীতি নষ্টের জন্য ওই ঘটনা হতে পারে বলে তারা মনে করছেন। মুসলিমদের কাছ থেকে অভিযোগ পাওয়ার পরে পুলিশ ওই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। মুসল্লিদের অভিযোগ, দুর্বৃত্তরা মসজদিটিতে লাউডস্পিকারে আযান ও নামাজ না পড়ার জন্য হুঁশিয়ারি দিয়েছে। মুসলিম এক যুবক গণমাধ্যমকে জানান, ‘১৫/২০ জন লোক এসে নামাজরত থাকা অবস্থায় মুসল্লিদের উপরে হামলা চালায়, একটি দেয়াল (ইটের কাঁচা দেয়াল) ভেঙে দিয়েছে, মাইক ভেঙে দেয়া হয়েছে, তার ছিঁড়ে দেয়া হয়েছে।

তারা হুমকি দিয়েছে যদি তোমরা ফের এখানে আযান দাও এবং নামাজ পড় তাহলে তোমাদের হত্যা করা হবে।’ সংশ্লিষ্ট মসজিদের একটি কাঁচা দেয়ালও দুর্বৃত্তরা ভেঙে দেয়াসহ লাউডস্পিকারের তার ছিঁড়ে দিয়েছে। ওই ঘটনার পরে মুসলিমরা নামাজ মাঝপথে ত্যাগ করতে বাধ্য হয়ে তারা স্থানীয় থানায় অভিযোগ জানিয়েছে। কুঞ্জপুরা থানার কর্মকর্তা রাজ কুমার বলেন, বিভিন্ন অভিযোগে মামলা দায়ের করে ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। পবিত্র রমজান মাসে ওই ঘটনার পর থেকে মুসলিম স¤প্রদায়ের মানুষজন আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন