বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ০৬:০০:০০ এএম

ফিফার কাছে আবেদন করলো কলম্বিয়া

খেলাধুলা | শনিবার, ৭ জুলাই ২০১৮ | ০৩:২১:৫৫ পিএম

এবারের বিশ্বকাপের শেষ ষোলোতে ইংল্যান্ডের কাছে টাইব্রেকারে হেরে বিদায় নেয় কলম্বিয়া। এ ম্যাচে মাঠেই বারবার রেফারির সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ করেন কলম্বিয়ান খেলোয়াড়েরা। আর ম্যাচ শেষে রেফারির বিরুদ্ধে পক্ষপাতের অভিযোগ তোলেন কলম্বিয়ার অধিনায়ক রাদামেল ফ্যালকাও।

একই অভিযোগ তোলেন রেফারির বিরুদ্ধে। শুধু প্রতিবাদ, সমালোচনা, ক্ষোভ প্রকাশ করাই নয়, রেফারির দুটি গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আন্তুর্জাতিক ফুটবল সংস্থার (ফিফা) কাছে রিভিউ আবেদনও করেছেন কলম্বিয়ানরা। একটি হলো ম্যাচে ইংল্যান্ডের পাওয়া একমাত্র পেনাল্টি নিয়ে।

আর দ্বিতীয়টি কলম্বিয়ান মিডফিল্ডার কার্লোস বাকার গোল বাতিল। ম্যাচে বাকার এক গোল বাতিল করা হয়। আর ৫৭ মিনিটে পেনাল্টি পায় ইংল্যান্ড। এই আবেদনের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে পিটিশনে স্বাক্ষর পড়েছে দুই লাখ ৭০ হাজার। রিভিউ আবেদনে টার্গেট ছিল ৩ লাখ স্বাক্ষর সংগ্রহ করা। ধারণা করা হচ্ছে, শিগগিরই লক্ষ্যমাত্রা ছুঁয়ে ফেলবে। মঙ্গলবার ইংল্যান্ড-কলম্বিয়ার ম্যাচ নির্ধারিত ৯০ মিনিটের খেলা ১-১ গোলের সমতায় শেষ হয়।



নির্ধারিত সময়ে গোল না হওয়ায় টাইব্রেকারে ৪-৩ ব্যবধানে কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করে ইংল্যান্ড। কিন্তু মস্কোর স্পার্তাক স্টেডিয়ামের এই হার মানতে পারছেন না কলম্বিয়ানরা। তাদের স্পষ্ট অভিযোগ, ইংল্যান্ড খেলে জিতেনি। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রেফারি মার্ক গিজার পক্ষপাতিত্ব করে ইংল্যান্ডকে জিতিয়ে দিয়েছেন!

রেফারির অনেক সিদ্ধান্তই ইংল্যান্ডের পক্ষে গেছে বলে ম্যাচ শেষে দাবি করেন কলম্বিয়ার অধিনায়ক ফ্যালকাও। তিনি বলেন, আমাদের যে গোলটা বাতিল করা হয়েছিল সেটা পরিষ্কার গোল ছিল।

অন্যদিকে রেফারি যে ঘটনায় ইংল্যান্ডকে পেনাল্টি দিয়েছেন, তাতে প্রথম ট্যাকল করেছিলেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক হ্যারি কেইন। কিন্তু রেফারি তখন ফাউলের বাঁশি বাজাননি।

কিন্তু তাদের এই রিভিউ শেষ পর্যন্ত কতটুকু কাজে আসবে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। কারণ, আজ সুইডেনের বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচে মাঠে নামবে ইংল্যান্ড। এই ম্যাচের আগে ফিফা কোনো সিদ্ধান্ত দেবে কি না তা আদৌ বলা যাচ্ছে না।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন